ঢাকা, মঙ্গলবার, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২৫ জানুয়ারি ২০২২, ২১ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

আন্তর্জাতিক

কেন ঘটেছিল দুর্ঘটনা, উত্তর হেলিকপ্টারের ব্ল্যাকবক্সে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৩৬ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৯, ২০২১
কেন ঘটেছিল দুর্ঘটনা, উত্তর হেলিকপ্টারের ব্ল্যাকবক্সে

ভারতের তামিলনাড়ুর কুন্নুরে গভীর জঙ্গলে বিধ্বস্ত দেশটির প্রতিরক্ষাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াতকে বহনকারী সেই হেলিকপ্টারের ব্ল্যাকবক্স উদ্ধার করেছেন তদন্তকারী দলের সদস্যরা।  

ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিধ্বস্ত এমআই-১৭ হেলিকপ্টারের ব্ল্যাকবক্স বৃহস্পতিবার (৯ ডিসেম্বর) উদ্ধার করা হয়।

 

ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজানাথ সিং এ তথ্য জানিয়েছেন।  

জিনিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়, কেন ঘটেছিল এই দুর্ঘটনা, দুর্ঘটনার আগমুহূর্তে কপ্টারের ভেতরের পরিস্থিতি ও কথোপকথন কী হয়েছিল—তা জানতে ব্ল্যাকবক্সটি থেকে অনেক তথ্য পাওয়া যেতে পারে বলে আশাবাদী তদন্তকারী।  

সরকারী সূত্র জানায়, কর্তৃপক্ষ দুর্ঘটনাস্থলের ৩০০ মিটার থেকে এক কিলোমিটার পর্যন্ত অনুসন্ধান করার পর ব্ল্যাকবক্সটি উদ্ধার করতে পেরেছে।

ব্ল্যাকবক্স কী?
একটি ব্ল্যাকবক্স এমন একটি ডিভাইস, যা হেলিকপ্টার দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে তদন্তকারীদের সাহায্য করার জন্য হেলিকপ্টারে ইনস্টল করা হয়। অনেকটা হার্ডডিস্কের মতোই এই ব্ল্যাকবক্স। এটি অত্যন্ত সুরক্ষিত যন্ত্র, যা ককপিটে সমস্ত ফ্লাইট ডেটা এবং কথোপকথন রেকর্ড করে। ককপিট কথোপকথন রেকর্ড করার পাশাপাশি রেকর্ডারটি অটোমেটিক ঘোষণা, রেডিও ট্র্যাফিক, ক্রুদের সঙ্গে আলোচনা এবং যাত্রীদের তথ্যও থাকে।  

বিশেষজ্ঞদের মতে, ফ্লাইট রেকর্ডারটি পাইলটদের মধ্যে ব্যক্তিগত কথোপকথনও যেমন সংরক্ষণ করে, তেমন এটি দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। দুর্ঘটনার আগমুহূর্তে ঠিক কী হয়েছিল ফ্লাইটে, তা এই ব্ল্যাকবক্স থেকে পাওয়া তথ্যে ধরা পড়ে।  

এ ক্ষেত্রে দুই ধরনের ফ্লাইট রেকর্ডিং ডিভাইস রয়েছে। ১. ফ্লাইট ডেটা রেকর্ডার (এফডিআর), যা প্রতি সেকেন্ডে কয়েক ডজন প্যারামিটার রেকর্ডিংয়ের মাধ্যমে ফ্লাইটের সাম্প্রতিক সমস্ত হিস্ট্রি সেভ করে। ২. ককপিট ভয়েস রেকর্ডার (সিভিআর), যা ককপিটে যাবতীয় শব্দসহ পাইলটদের কথোপকথনও রেকর্ড করে।  

বিপিন রাওয়াতসহ ১৩ জন নিহত
বুধবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে তামিলনাড়ুর কুন্নুরে গভীর জঙ্গলে হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে ভারতের প্রতিরক্ষাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত, তার স্ত্রী মধুলিকা নিহত হয়েছেন। তাদের সঙ্গে প্রাণ গেছে আরও ১১ জনের। দুর্ঘটনায় বেঁচে যাওয়া একমাত্র ব্যক্তি পাইলট বরুন সিং।  

বিধ্বস্ত হওয়া হেলিকপ্টারটিতে আরও ছিলেন ব্রিগেডিয়ার এলএস লিড্ডার, লেফটেন্যান্ট কর্নের হরজিন্দর সিং, নায়েক গুরুসেবক সিং, নায়েক জিতেন্দ্র কুমার, ল্যান্স নায়েক বিবেক কুমার, ল্যান্স নায়েক বি সাই তেজা ও হাবিলদার সৎপাল।  

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩৬ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৯, ২০২১
জেএইচটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa