bangla news

নারীর উন্নয়ন ছাড়া দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়: ইন্দিরা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১৩ ৭:০২:১৩ পিএম
সম্মাননা পেলেন জয়িতারা। ছবি: সংগৃহীত

সম্মাননা পেলেন জয়িতারা। ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রাম: মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী বেগম ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেছেন, বাংলাদেশের মোট জনসংখ্যার অর্ধেক নারী। তাই নারীর উন্নয়ন ছাড়া দেশের কাঙ্খিত উন্নয়ন সম্ভব নয়।

বুধবার (১৩ নভেম্বর) নগরের এলজিইডি ভবনে চট্টগ্রাম বিভাগীয় প্রশাসন এবং মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর আয়োজিত জয়িতা সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু সংবিধানে নারী-পুরুষের সমান অধিকার দিয়েছেন। বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীর সেই অধিকার ও ক্ষমতায়ন নিশ্চিত করতে নিরলসভাবে কাজ করছেন।

ইন্দিরা বলেন, জয়িতারা বাংলাদেশের আলোকবর্তিকা। অনেক বাধা ও প্রতিকূলতা অতিক্রম করে তারা সমাজে নিজের স্থান করে নিয়েছেন। জয়িতারাই আমাদের দেশে নারীর ক্ষমতায়ন ও উন্নয়নের অনন্য উদাহরণ।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, সরকারের সহযোগিতায় দেশের নারীরা স্বাবলম্বী হচ্ছে। নারীর ক্ষমতায়ন, নারীর সমমর্যাদা ও সমঅধিকার প্রতিষ্ঠায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এখন সারা বিশ্বে রোল মডেল।

তিনি বলেন, রাজনৈতিক ক্ষমতায়নে বিশ্বে বাংলাদেশ পঞ্চম। দেশের প্রধানমন্ত্রী, স্পিকার, বিরোধী দলের নেত্রী, সংসদ উপনেতা- সবাই নারী। বিশ্বের কোথাও রাষ্ট্রীয় উচুঁ পদে এতো বেশি সংখ্যক নারী নেই। বাংলাদেশেই আছে।

ইন্দিরা বলেন, বাল্য বিয়ের কারণে অনেক নারীর ভবিষ্যত নষ্ট হচ্ছে। অনেকে স্বামীর সংসারে নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন। এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। যে কোনো মূল্যে বাল্য বিয়ে বন্ধ করতে হবে।

বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব কামরুন নাহার, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বদরুন নেছা, চট্টগ্রাম নগর মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসিনা মহিউদ্দিন প্রমুখ বক্তব্য দেন।

অনুষ্ঠানে ৫টি ক্যাটাগরিতে চট্টগ্রাম বিভাগের ১১টি জেলার ৫৫ জন জয়িতাকে নগদ টাকা, ক্রেস্ট ও সনদ দেওয়া হয়। এর মধ্যে ৫ জনকে শ্রেষ্ঠ জয়িতা নির্বাচিত করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০১ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৩, ২০১৯
এমআর/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   চট্টগ্রাম
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-13 19:02:13