bangla news

বিপদের কাণ্ডারী বদর কবুতর

আবু তালহা, সিনিয়র নিউজরুম এডিটর | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৬-১২-২১ ৫:৫২:৪৮ এএম
ছবি: বিপদের কাণ্ডারী বদর কবুতর-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বিপদের কাণ্ডারী বদর কবুতর-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ভোর হলে দুবলার চরের চারদিক ভরে যায় পাখি আর পাখিতে। মাছের আধিক্য হওয়ায় এদিকটায় পাখির সংখ্যা বেশি। সাগরের মাছতো বটেই, শুঁটকির আড়ৎ থাকায় এ দ্বীপে প্রচুর পাখি দেখা যায়।

দুবলার চর, শরনখোলা রেঞ্জ, সুন্দরবন থেকে: ভোর হলে দুবলার চরের চারদিক ভরে যায় পাখি আর পাখিতে। মাছের আধিক্য হওয়ায় এদিকটায় পাখির সংখ্যা বেশি। সাগরের মাছতো বটেই, শুঁটকির আড়ৎ থাকায় এ চরে প্রচুর পাখি দেখা যায়।

এর মধ্যে সবচেয়ে সুন্দর দেখতে সাদা রঙের একটি পাখি। স্থানীয়রা বলে, এটি হলো বদর কবুতর, বিপদের কাণ্ডারী।ছবি: বিপদের কাণ্ডারী বদর কবুতর-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কমকথিত রয়েছে, পীর বদর প্রায় ছয়শো বছর আগে একটি পাথরের ওপর বসে চট্টগ্রাম আসেন। তিনি একটি মাটির আশ্চর্য প্রদীপ জ্বালাতেন। যাকে বলা হতো চাটি। এই চাটি শব্দ থেকেই চট্টগ্রাম বা চাটগাঁও নামের উৎপত্তি। তিনিই প্রথম চট্টগ্রামে ইসলাম প্রচার শুরু করেন।

ধারণা করা হয়, বারোবাজারের দক্ষিণে হাসিলবাগ গ্রামে হাটের নাম, তার নামানুসারে ‘বদরের হাট’ হয়। সুন্দরবনের জেলেদের কাছে পীর বদর প্রসিদ্ধ। নৌকার মাঝিরা ভয়সঙ্কুল নদীপথে তার নাম উচ্চারণ করে থাকেন। ‘আমরা আছি পোলাপান/ গাজী আছে নিঘাবান/ আল্লা নবী, পাঁচপীর/ বদর বদর’।

** দুবলার চরে নাম সংকীর্তন-ভাবগীতে খণ্ডকালীন জীবন
** বাঘের পায়ের ছাপ সন্ধানে ওয়াকওয়ে ধরে দেড় কিলোমিটার
** মংলা পোর্টে এক রাত
** বিস্মৃতির অতলে বরিশালের উপকথা​
**‘জোনাকি’ ভরা বুড়িগঙ্গা

বাংলাদেশ সময়: ১৬৪২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২১, ২০১৬
এটি/আরবি/এসএনএস
সহযোগিতায়

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পর্যটন বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
cache_14 2016-12-21 05:52:48