ঢাকা, সোমবার, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৬ মে ২০২২, ১৪ শাওয়াল ১৪৪৩

আন্তর্জাতিক

‘ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্ক জোরদারে দৃষ্টি থাকবে শ্রিংলার’

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৬৫০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৯
‘ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্ক জোরদারে দৃষ্টি থাকবে শ্রিংলার’

ঢাকা: ভারতের পররাষ্ট্রসচিব বিজয় গোখলে অবসর নেওয়ার পর ২৯ জানুয়ারি এই পদে নতুন দায়িত্ব নিতে যাচ্ছেন হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা। কর্মজীবনে বাংলাদেশে দীর্ঘ তিন বছর ভারতের হাইকমিশনার হিসেবে তার পদক্ষেপ ছিল অনন্য। একইসঙ্গে বাংলাদেশের রাজনৈতিক নেতৃত্বের সঙ্গেও তার দুর্দান্ত সম্পর্ক। এ পরিপ্রেক্ষিতে ভারত-বাংলাদেশ দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক আরও জোরদার হবে বলে আশা করছেন বিশিষ্টজনেরা।

শনিবার (২৮ ডিসেম্বর) এমন খবরই প্রকাশ করেছে ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস। এই প্রতিবেদনে উভয় দেশের বিভিন্ন বিশ্লেষক এবং নাগরিকের মতামতের কথা বলা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, পররাষ্ট্রসচিব হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর প্রথমেই শ্রিংলা সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন এবং নাগরিকত্ব তালিকা সম্পর্কিত সমস্যার জন্য ‘ক্ষতিগ্রস্ত’ ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্ক ‘পুনরুদ্ধারে’ মনোনিবেশ করবেন বলে আশা করা হচ্ছে। একইসঙ্গে বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক স্থির করার বিষয়টি নিয়ে পররাষ্ট্রসচিব শ্রিংলা বাংলাদেশর পক্ষে থাকবেন বলেই বিশ্বাস সবার।

এ প্রসঙ্গে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বাংলাদেশের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকতা হিন্দুস্তান টাইমসকে জানিয়েছেন, বাংলাদেশের রাজনৈতিক নেতা ও কূটনীতিকদের সঙ্গে শ্রিংলার খুব ভালো সম্পর্ক রয়েছে। সেই জায়গাটি কাজে লাগিয়ে বিভিন্ন উদ্বেগের সমাধানে তিনি অনেককিছু করতে পারেন। এছাড়া ঢাকায় তার সাফল্যের কারণে তাকে বাংলাদেশের বন্ধু হিসেবেও মনে করা হয়।

এর আগে ভারতীয় সংসদে নাগরিকত্ব সংশোধন বিল পাস হওয়ার পরে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল নির্ধারিত ভারত সফর বাতিল করে দিয়েছিলেন।

এদিকে, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাংলাদেশ সফরের কথা রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ০১৪৬ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৯
এইচএমএস/টিএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa