bangla news

ক্যাসিনোর অর্থ বিএনপি নেতাদের কাছেও যেতো: কাদের

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-২৩ ৭:৪৫:২৯ পিএম
মেধাবী শিক্ষার্থীকে বৃত্তি ও প্রধানমন্ত্রীর রচিত গ্রন্থ উপহার প্রদান/ছবি- ডি এইচ বাদল

মেধাবী শিক্ষার্থীকে বৃত্তি ও প্রধানমন্ত্রীর রচিত গ্রন্থ উপহার প্রদান/ছবি- ডি এইচ বাদল

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: বিভিন্ন সংবাদপত্রের বরাত দিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ক্যাসিনোর অর্থ বিএনপি নেতাদের কাছেও যেতো।

সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) বিকেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনে এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ মন্তব্য করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৩তম জন্মদিন উপলক্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের ৭৩ মেধাবী শিক্ষার্থীকে বৃত্তি ও প্রধানমন্ত্রীর রচিত গ্রন্থ উপহার প্রদান উপলক্ষে আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ-কমিটি এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান, জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম, জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামান ও বাংলা বিভাগের চেয়ারম্যান ভীষ্মদেব চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ কমিটির চেয়ারম্যান এ এফ এম ফখরুল ইসলাম মুন্সী।

মন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ ধোয়া তুলসি পাতা নয়। এখানে কেউ চাঁদাবাজি করে না, কেউ টেন্ডারবাজি করে না, কেউ গডফাদারগিরি করে না; এই দাবিতো আমরা করিনি। আমরা পিউরিটির কালচার গড়ে তুলছি। বিএনপি পারেনি। বিএনপি হাওয়া ভবনকে লুটপাটের আখড়ায় পরিণত করেছিল।

তিনি বলেন, কেবল ক্যাসিনো আর জুয়ার কথা বলেন, শেখ হাসিনার অ্যাকশন শুরু হয়ে গেছে। দুর্নীতিবাজ, টেন্ডারবাজদের বের করা হচ্ছে, খুঁজে খুঁজে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। তেমনি এটাও বের করা হচ্ছে এদের অর্জিত অবৈধ অর্থ এদেশের কোন কোন নেতার কাছে যেত। অবশ্যই এরমধ্যে গণমাধ্যমে এসে গেছে অনেক বিএনপি নেতার কাছেও এই ক্যাসিনো মালিকদের টাকা যেতো। বিএনপিকে সেই প্রশ্নেরও জবাব দিতে হবে।

বিএনপিকে আত্মস্বীকৃত দুর্নীতিবাজ ও সন্ত্রাসী দল আখ্যা দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, তাদের মুখে দুর্নীতির বিরুদ্ধে কথা বলা আর ভূতের মুখে রাম রাম একই কথা। প্রধানমন্ত্রী ঘর দিয়ে শুরু করে দৃষ্টান্ত শুরু করেছেন। দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান চলবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯
এসকেবি/জেডএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ওবায়দুল কাদের
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-23 19:45:29