ঢাকা, বুধবার, ৩ বৈশাখ ১৪৩১, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ০৭ শাওয়াল ১৪৪৫

জাতীয়

বেইলি রোডে ভবনে অগ্নিকাণ্ড

বাড়িতে পৌঁছাল ৫ মরদেহ, শোকার্ত গ্রামবাসীর ঢল

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬১৪ ঘণ্টা, মার্চ ১, ২০২৪
বাড়িতে পৌঁছাল ৫ মরদেহ, শোকার্ত গ্রামবাসীর ঢল

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: রাজধানীর বেইলি রোডস্থ ভবনে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার একই পরিবারের পাঁচজনের মরদেহ তাদের গ্রামের বাড়িতে পৌঁছেছে।

শুক্রবার (১ মার্চ) বিকেলে সাড়ে ৩টার দিকে মরদেহগুলো চারটি অ্যাম্বুলেন্সযোগে সরাইল উপজেলার শাহবাজপুর ইউনিয়নের খন্দকার পাড়া আনা হয়।

মরদেহ আসা মাত্র শোকার্ত গ্রামবাসীর ঢল নামে।  

এ সময় তাদের কান্নায় এই শোকাবহ পরিবেশের সৃষ্টি হয়।

পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বাদ আসর নামাজের পর  জানাজা হবে। এরপর বাড়ির পাশে কবরস্থানে দাফন করা হবে।

অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের ঘটনায় নিহত সৈয়দ মোবারক হোসেন কাউসার ও তার স্ত্রী ও তিন সন্তান। ইতালি প্রবাসী ছিলেন মোবারক। পরিবারের চার ছেলে-মেয়ের মধ্যে তিনি দ্বিতীয়।  

স্বজনরা জানান, সবাইকে নিয়ে ডিনার করতে বেইলি রোডে গিয়েছিলেন মোবারক। সঙ্গে ছিল স্ত্রী স্বপ্না, দুই মেয়ে সৈয়দা কাশফিয়া ও সৈয়দা নূর এবং একমাত্র ছেলে সৈয়দ আব্দুল্লাহ।  

দেড় মাস আগে দেশে এসে পুরো পরিবারকে ইতালিতে নেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। কিন্তু আগুনে পুড়ে সব কিছু শেষ। ঘটনাটি একেবারে মর্মান্তিক। এরকম দুর্ঘটনা যেন আর কারো পরিবারের না হয়।   

নিহতের কাউসারে মা সৈয়দ হেলেনা বেগম বলেন, আমার ছেলেসহ পুরো পরিবার আগুনে পড়ে শেষ হয়ে গেছে। আমি বেঁচে থেকে আর কী করব! আমার ছেলে রেখে আল্লাহ আমারে নিয়ে যাইত। আমি এই শোক সইব কী করে!

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) রাতে বেইলি রোডে একটি বহুতল ভবনে আগুন লাগে। এতে অন্তত ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে।

আরও পড়ুন >> ‘ছেলেকে রেখে আল্লাহ আমারে নিয়ে যাইত গা’, মায়ের বিলাপ

বাংলাদেশ সময়: ১৬০৩ ঘণ্টা, মার্চ ০১, ২০২৪
এসএএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।