ঢাকা, শুক্রবার, ৪ ভাদ্র ১৪২৯, ১৯ আগস্ট ২০২২, ২০ মহররম ১৪৪৪

আইন ও আদালত

মনোহরদীতে প্রতিবেশীকে খুন: ৭ জনের যাবজ্জীবন

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৩০ ঘণ্টা, আগস্ট ৫, ২০২২
মনোহরদীতে প্রতিবেশীকে খুন: ৭ জনের যাবজ্জীবন

নরসিংদী: নরসিংদীর মনোহরদীতে প্রতিবেশীকে খুনের দায়ে ৭ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত।  

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) বিকেলে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ শারমিন পারভীনের আদালতে এই রায় ঘোষণা করেন।



দণ্ডাপ্রাপ্তরা হলেন- মনোহরদী থানার কামার আলগী গ্রামের মৃত আলাউদ্দিনের ছেলে এবাদুল্লাহ মিয়া (মৃত), একই গ্রামের মৃত মোমতাজ উদ্দিনের ছেলে জোহর আলী, কাছাব আলীর ছেলে জয়নাল আবেদীন, মৃত নমুদ্দিনের ছেলে কামরুল ইসলাম, একদুল্লাহ মিয়ার ছেলে আনোয়ার হোসেন, ছাত্তার মিয়ার ছেলে লুলু মিয়া ও আব্দুল বাতেনের ছেলে কামরুল মিয়া।

নরসিংদী অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের এপিপি এএম অলিউল্লাহ জানান, ২০০৭ সালে মনোহরদীতে টিউবওয়েলের মাথা খুলে নেওয়াকে কেন্দ্র করে প্রতিবেশীর সাথে ঝগড়ার জেরে খুন হয় সালমা আক্তার নামে এক নারী। ঘটনার পরদিন সালমার বড় ভাই আবুল কাশেম বাদী হয়ে মনোহরদী থানায় ৪ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা করেন। ৪ আসামির একজনের জবানবন্দীর ভিত্তিতে মামলায় যুক্ত হয় আরও ৩ জনসহ মোট ৭ জনের নাম। ৭ জনের একজন মারা যায় ইতোমধ্যে, ৩ জন জামিনে বের হয়ে যায় এবং বাকি ৩ জনকে রাখা হয় জেলহাজতে। সবশেষ, প্রায় ১৫ বছর পর জীবিত ৬ আসামির উপস্থিতিতে আজ ৭ জনকে যাবজ্জীবন দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০০২৬ ঘণ্টা, আগস্ট ০৫, ২০২২
এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa