ঢাকা, সোমবার, ১ আশ্বিন ১৪২৬, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯
bangla news

শহিদুল আলমের মামলার বৈধতার রুল নিষ্পত্তির নির্দেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৮-১৮ ২:২২:৪৫ পিএম
আলোকচিত্রী শহিদুল আলম

আলোকচিত্রী শহিদুল আলম

ঢাকা: নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের সময় আলোকচিত্রী শহিদুল আলমের বিরুদ্ধে করা তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলার তদন্ত কার্যক্রম স্থগিত করে হাইকোর্টের জারি করা রুল ১৮ ডিসেম্বরের মধ্যে নিষ্পত্তি করতে বলেছেন আপিল বিভাগ।

হাইকোর্টের স্থগিতাদেশের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষের করা আবেদন নিষ্পত্তি করে রোববার (১৮ আগস্ট) প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। শহিদুল আলমের পক্ষে ছিলেন সাবেক অ্যাটর্নি জেনারেল এএফ হাসান আরিফ। সঙ্গে ছিলেন ব্যারিস্টার জ্যোর্তিময় বড়ুয়া।

অ্যাটর্নি জেনারেল বলেন, ১৪ মার্চ হাইকোর্ট বেঞ্চ আদেশ দিয়েছিলেন। এর বিরুদ্ধে আমরা ৪ এপ্রিল লিভ পিটিশন (আপিল বিভাগে আবেদন) করেছি।

পরে ব্যারিস্টার জ্যোর্তিময় বড়ুয়া বলেন, বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন বেঞ্চে ১৮ ডিসেম্বরের মধ্যে রুল নিষ্পত্তি করতে বলেছেন আপিল বিভাগ। এখন হাইকোর্টের দেওয়া স্থগিতাদেশ বহাল থাকবে।

গত ১৪ মার্চ বৃহস্পতিবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ মামলাটির তদন্ত কার্যক্রমের ওপর স্থগিতাদেশ দেন।

হাইকোর্টের দেওয়া ওই আদেশ স্থগিত চেয়ে আপিল বিভাগে আবেদন করে রাষ্ট্রপক্ষ।

২৫ মার্চ আপিল বিভাগের অবকাশকালীন চেম্বার বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী এ আবেদন শুনানির জন্য ১১ এপ্রিল পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে পাঠানোর আদেশ দেন।

পরে আপিল বিভাগে শুনানি শেষে রোববার আদেশ দেন আদালত।

গত বছরের ১৫ নভেম্বর বিচারপতি শেখ আবদুল আউয়াল ও বিচারপতি ভীষ্মদেব চক্রবর্তীর হাইকোর্ট বেঞ্চ এ মামলায় আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে জামিন দিয়েছিলেন।

এদিকে মামলার বৈধতা নিয়ে হাইকোর্টে মার্চ মাসে আবেদন করেছিলেন শহিদুল আলম।

নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের সময় গত বছরের ৫ আগস্ট শহিদুল আলমকে বাসা থেকে নেওয়ার পর ‘উস্কানিমূলক মিথ্যা’ প্রচারের অভিযোগে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলায় ৬ আগস্ট রিমান্ডে নেয় পুলিশ। এ মামলায় ৬ আগস্ট সিএমএম আদালতে তার জামিন আবেদন নামঞ্জুর হয়েছিলো।

বাংলাদেশ সময়: ১৪২১ ঘণ্টা, আগস্ট ১৮, ২০১৯
ইএস/জেডএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   নিরাপদ সড়ক চাই
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-08-18 14:22:45