bangla news

শিক্ষাবঞ্চিত গ্রামের শিশুরা, ব্যাখ্যা চান মিয়ানমার এমপিরা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১১ ১:৩৬:৪৪ পিএম
মিয়ানমারের একটি স্কুল। ছবি: সংগৃহীত 

মিয়ানমারের একটি স্কুল। ছবি: সংগৃহীত 

বিশ্ব ব্যাংকের শিক্ষা প্রকল্পের ঋণের আওতা থেকে বাদ পড়েছে মিয়ানমারের বেশ কয়েকটি স্কুল। প্রকল্পে স্কুলগুলো কীভাবে ও কোন পদ্ধতিতে নির্বাচন করা হয়েছে, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছে তার ব্যাখ্যা চেয়েছেন কয়েকজন সংসদ সদস্য।

সোমবার (১১ নভেম্বর) মিয়ানমারের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে এ তথ্য জানা গেছে। 

খবরে বলা হয়, সংসদের উচ্চকক্ষের কায়াহ রাজ্যের এমপি উ সোয়ে থিন, আমত্থো লুতো জানতে চেয়েছেন, প্রকল্পের জন্য ১১৫টি শহর কোন পদ্ধতিতে নির্বাচন করা হয়েছে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে বলা হয়েছে, প্রয়োজনীয়তা, দুর্গম্যতা এবং শিক্ষা ও স্বাস্থ্যসেবা পাওয়ার অসুবিধা- এসবের ওপর ভিত্তি করে শহরগুলোও নির্বাচন করা হয়েছে।

উ সোয়ে থিন জানান, তার সংসদীয় আসনের অন্তর্ভুক্ত শহরগুলোও এই প্রকল্পের আওতাধীন হওয়ার যোগ্যতা থাকা সত্ত্বেও সেগুলো নির্বাচিত হয়নি।

তিনি বলেন, কায়াহর দুর্গম গ্রামগুলোর শিশুরা শিক্ষাসেবা থেকে বঞ্চিত। 

মাগওয়ি অঞ্চলের সিদোকতায়ার নিম্নকক্ষের এমপি উ কিয়াও লুইন অং, প্যিথু লুতো জানান, তাদের আসনের শহরগুলোও এই প্রকল্পের আওতায় নেই।

উ কিয়াও লুইন অং বলেন, এ ধরনের বিশেষ প্রকল্পগুলো থেকে সবসময় বঞ্চিত হয়ে আসছে সিদোকতায়া। এমনটি কেন হচ্ছে তা আমরা জানি না। 

তিনি বলেন, এসব ঋণ সঠিকভাবে ব্যবহার করা হচ্ছে কি-না তা অনুসন্ধান করা উচিত। 

বিশ্ব ব্যাংকের এই ঋণ প্রকল্প বাস্তবায়িত হবে দেশটির ১১৫টি শহরের ১৮ হাজার ৪শ’ ৭৬টি স্কুলে। ৩০ লাখেরও বেশি শিক্ষার্থীর এই সুবিধা পাওয়ার কথা রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৩৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ১১, ২০১৯
এফএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   সিনেমা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-11 13:36:44