bangla news

মাসুদুলের অপচিকিৎসা বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৬-১৮ ৫:৫১:০৬ পিএম
অপচিকিৎসা বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন-ঝাঁটা মিছিল

অপচিকিৎসা বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন-ঝাঁটা মিছিল

মাগুরা: মাগুরায় উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পাস মাসুদুল হক নিজেকে এমবিবিএস চিকিৎসক পরিচয় দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে রোগী দেখার ঘটনায় এলাকায় ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে। এ ঘটনায় ভুয়া চিকিৎসক মাসুদুল হকের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়াসহ অপচিকিৎসা বন্ধের দাবি জানিয়েছেন সাধারণ মানুষ।

মঙ্গলবার (১৮ জুন) দুপুরে শহরের সরকারি হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজের সামনে আয়োজিত এক মানববন্ধনে এ দাবি জানানো হয়। এ সময় একই দাবিতে জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি জমা দেন জেলার বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ। 

বিক্ষুব্ধ মাগুরাবাসীর ব্যানারে আয়োজিত মানববন্ধনে অপচিকিৎসার স্বীকার কয়েক জন রোগী, বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ এবং জেলা ক্লিনিক মালিক সমিতি অংশ নেন। এসময় মাসুদুলের বিরুদ্ধে নানা অপচিকিৎসার উল্লেখ্য করে বক্তব্য রাখেন- ডা. বাবুল রশিদ, মাগুরা জেলা ক্লিনিক অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মনিরুজ্জামান মিরাজসহ বেশ কয়েক জন রোগী।

বক্তারা জাহান ক্লিনিকের মালিক ও পরিচালক মাসুদুল হককে দ্রুত আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। মানববন্ধন শেষে ঝাঁটাস মিছিল নিয়ে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে স্মারকলিপি দেন তারা। 

এসময় জেলা প্রশাসক (ডিসি) আলী আকবর বাংলানিউজকে বলেন, মাগুরার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) ফরিদ হোসেনের নেতৃত্বে তিন সদস্যবিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা  হয়েছে। এছাড়া, পৃথক তদন্ত টিম গঠন করে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সিভিল সার্জনকে বলা হয়েছে।
 
জানা যায়, এইচএসসি পাস মাসুদুল হক নিজেকে এমবিবিএস ডাক্তার পরিচয় দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে চিকিৎসাসহ অস্ত্রোপচার করছেন। মাগুরা সদর হাসপাতালের পাশে তার জাহান ক্লিনিক নামে একটি ১০তলা ক্লিনিক রয়েছে। দীর্ঘদিন ওই ক্লিনিকে রোগীরা ভুল চিকিৎসার স্বীকার হচ্ছে এমন অভিযোগ রয়েছে। মাসুদুল ১৫ বছর রাশিয়ায় থেকে একটি ডিপ্লোমা সনদ জোগাড় করেছেন। পরে দেশে ফিরে এমবিবিএস ডাক্তার পরিচয়ে অস্ত্রোপচারসহ নানা প্রকার অপচিকিৎসা শুরু করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৫১ ঘণ্টা, জুন ১৮, ২০১৯
জিপি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   মানববন্ধন
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-06-18 17:51:06