ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৭ মে ২০২৪, ১৮ জিলকদ ১৪৪৫

ফুটবল

এমবাপ্পের গোলে পিএসজির স্বস্তির জয়

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০২৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২২
এমবাপ্পের গোলে পিএসজির স্বস্তির জয়

পুরো ম্যাচে আধিপত্য বজায় রাখলেও গোলের দেখা পেতে পিএসজিকে অপেক্ষা করতে হলো ৯৩ মিনিট পর্যন্ত। যদিও নির্ধারিত সময়ে বেশকিছু সুযোগ নষ্ট করেছেন কিলিয়ান এমবাপ্পে।

অবশেষে লিওনেল মেসির সহায়তায় করা ফরাসি ফরোয়ার্ডের গোলেই জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ফরাসি জায়ান্টরা।

ঘরের মাঠ পার্ক দেস প্রিন্সেসে শুক্রবার রাতে লিগ ওয়ানের ম্যাচে রেনেকে ১-০ গোলে হারায় পিএসজি।  

আগের ম্যাচে লিলেকে বড় ব্যবধানে হারালেও এ ম্যাচে লিওনেল মেসি-এমবাপ্পেদের কাছে গোল যেন এক 'সোনার হরিণ'। পুরো ম্যাচে আক্রমণের পসরা সাজিয়েও রেনের রক্ষণভাগ ভাঙতে পারছিল না পচেত্তিনোর শিষ্যরা। শেষ পর্যন্ত মেসির বাড়ানো বলে দারুণ এক গোল করে পিএসজিকে রক্ষা করেন এমবাপ্পে। সুযোগ পেয়েছিল রেনেও। তবে দুর্ভেদ্য জালের দেখা পায়নি সফরকারীরা।

ম্যাচের শুরুতেই দুই দফা আক্রমণ করে বসে রেনে। সপ্তম মিনিটে পিএসজির রক্ষণভাগে ভয় ধরায় রেনের ফরোয়ার্ড লাইন। তবে কেইলর নাভাসের দৃঢতায় রক্ষা পায় স্বাগতিকরা। বক্সের সামনে থেকে বোরিগার্দের ভলি বাতাসে ভেসে পোস্টের দিকে গেলে দেখে শুনে কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন নাভাস। ১৪ মিনিটে আবারো সুযোগ পায় তারা কিন্তু সানতামারিয়ার হেড লক্ষ্যভ্রষ্ট হলে সুযোগ নষ্ট হয় রেনের।

৩৫ মিনিটে ম্যাচে প্রথমবার ভালো সুযোগ পায় পিএসজি। তবে তা কাজে লাগেনি। বক্সের কোণা থেকে রেনের তিন-চারজন ডিফেন্ডারের মাঝ দিয়ে এমবাপ্পের বাঁকানো শট দূরের পোস্ট ঘেঁষে বাইরে চলে যায়। ৪০ মিনিটে এমবাপ্পের প্রচেষ্টা সাইড বারে লেগে ফিরে এলে ফিরতি বলে গোলের উদ্দেশ্যে শট নেন জাভি সিমন্স, কিন্তু তা কোনো মতে রক্ষা করেন গোলরক্ষক আলেমাদার। বল চলে যায় টাচলাইনের দিকে, সেখানে বলে নিয়ন্ত্রণ নিতে গিয়ে প্রতিপক্ষ ফুটবলারের পায়ে আঘাত করে বসেন এমবাপ্পে, হলুদ কার্ড দেখান রেফারি। প্রথমার্ধে গোল শূন্য সমতায় শেষ হয়।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই গোল পেতে মরিয়া হয়ে ওঠে পিএসজি। ৬৩ মিনিটে বড় সুযোগ নষ্ট করেন এমবাপ্পে। ড্রেক্সলারের বাড়ানো বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে এমবাপ্পের শট জাল খুঁজে পায়নি। পরের মিনিটেই বল জালে জড়িয়েছিলেন এমবাপ্পে ,কিন্তু অফসাইডে তা বাতিল হয়। ম্যাচ তখন নির্ধারিত নব্বই মিনিট শেষ, যোগ করা তিন মিনিট চলছে। দারুণ এক কাউন্টার আক্রমণে উঠে পিএসজি। মাউরো ইকার্দি বল বাড়িয়ে দেন মেসির উদ্দেশ্যে, বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে খানিকটা এগিয়ে গিয়ে এমবাপ্পের দিকে ঠেলে দেন তিনি। বক্সের ভেতর থেকে বাঁকানো শটে দূরের পোস্টে লক্ষ্যভেদ করেন এই ফরাসি তারকা।  

এই জয়ে ২৪ ম্যাচে ৫৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষস্থান আরো পাকাপোক্ত করলো মাউরো পচেত্তিনোর দল। সমান ম্যাচে ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচে নেমে গেছে রেনে। এই জয়ে টানা ১৫ ম্যাচ অপরাজিত থাকল পিএসজি। সেই সঙ্গে দ্বিতীয় স্থানে থাকা মার্সেইয়ের সঙ্গে পিএসজির পয়েন্ট ব্যবধান বেড়ে দাঁড়াল ১৬-তে।

বাংলাদেশ সময়: ১০২৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২২
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।