ঢাকা, শুক্রবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৪ মে ২০২৪, ১৫ জিলকদ ১৪৪৫

ফুটবল

৬ সেকেন্ডে গোল করে অস্ট্রিয়ান ফুটবলারের ইতিহাস

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৫৮ ঘণ্টা, মার্চ ২৪, ২০২৪
৬ সেকেন্ডে গোল করে অস্ট্রিয়ান ফুটবলারের ইতিহাস

কিক-অফের পর থিতু হতে না হতেই গোল। আন্তর্জাতিক ফুটবলে গতকাল এমন দৃশ্য দেখা গেছে দুবার।

অস্ট্রিয়ার ফুটবলার ক্রিস্তোফ বমগার্তনার তো ইতিহাসই গড়ে ফেললেন। আন্তর্জাতিক ফুটবল ইতিহাসে সবচেয়ে দ্রুততম গোলের মালিক বনে গেলেন তিনি।

তেহেলনে পোলে স্টেডিয়ামে স্লোভাকিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়েছে অস্ট্রিয়া। ডেডলক ভাঙতে মাত্র ৬ সেকেন্ড সময় নান ক্রিস্তোফ। কিকঅফের পর তিনজন ফুটবলারকে কাটিয়ে ২৫ গজ দূর থেকে কোনাকুনি শটে জাল খুঁজে নেন তিনি।

এর আগে সবচেয়ে দ্রুততম গোলের রেকর্ডটি ছিল লুকাস পোডলস্কির। ২০১৩  সালে ইকুয়েডরের বিপক্ষে ৭ সেকেন্ডে গোল করেছিলেন সাবেক এই জার্মান মিডফিল্ডার। কিন্তু আন্তর্জাতিক তো বটেই জাতীয় দলের ক্ষেত্রেও তার রেকর্ডটি আর অক্ষুণ্ন নেই।  

কেননা ফ্রান্সের বিপক্ষে ৭ সেকেন্ডে গোল করে সেই রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন ফ্লোরিয়ান ভাইর্ৎস। অবসর ভেঙে ফেরা টনি ক্রুসের পাসে ২৫ গজ দূর থেকে জোরালো শটে জাল খুঁজে নেন এই মিডফিল্ডার। পোডলস্কির গোলের থেকে যার ব্যবধান কয়েক মিলিসেকেন্ডের।  


ইউরো জন্য দল নতুন করে ঢেলে সাজিয়েছেন কোচ ইউলিয়ান নাগেলসমান। তার অনুরোধে অবসর ভেঙে ফিরেছেন টনি ক্রুস। সেই জার্মানি দলের শুরুটা হলো দুর্দান্তই। নতুন বছরের প্রথম ম্যাচে ফ্রান্সকে ২-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে তারা। শেষ চার ম্যাচে এটাই তাদের প্রথম জয়। গ্রুপামা স্টেডিয়ামে জার্মানির হয়ে দ্বিতীয় গোলটি করেন কাই হাভার্টজ।  

জয়ের পর জার্মান কোচ বলেন, ‘এই ম্যাচ থেকে আমাদের আত্মবিশ্বাস বেড়েছে। আমরা আজ দারুণ খেলেছি এবং সঠিক পথেই আছি। ’

কিক অফের পর গোল করার পরিকল্পনা আগে থেকেই করা ছিল বলে জানালেন ক্রুস, ‘ম্যাচের আগে আমরা এটা অনুশীলন করেছি। আসলে এভাবে গোল করার পরিকল্পনা আমাদের আগে থেকেই ছিল। ’

বাংলাদেশ সময়: ১১৫৯ ঘণ্টা, মার্চ ২৪, ২০২৪
এএইচএস 
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।