ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২২ জিলহজ ১৪৪১

ফিচার

ইতিহাসের এই দিনে

শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়ের জন্ম

ফিচার ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৪১৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৯
শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়ের জন্ম জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়, ফাইল ফটো

ঢাকা: ইতিহাস আজীবন কথা বলে। ইতিহাস মানুষকে ভাবায়, তাড়িত করে। প্রতিদিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা কালক্রমে রূপ নেয় ইতিহাসে। সেসব ঘটনাই ইতিহাসে স্থান পায়, যা কিছু ভালো, যা কিছু প্রথম, যা কিছু মানবসভ্যতার আশীর্বাদ-অভিশাপ।

তাই ইতিহাসের দিনপঞ্জি মানুষের কাছে সব সময় গুরুত্ব বহন করে। এ গুরুত্বের কথা মাথায় রেখে বাংলানিউজের পাঠকদের জন্য নিয়মিত আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিন’।

১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, রোববার। ৩১ ভাদ্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ। ১৫ মহররম ১৪৪০ হিজরি। এক নজরে দেখে নিন ইতিহাসের এ দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনা
১৬৫৬- ইংল্যান্ড ও ফ্রান্স শান্তিচুক্তি স্বাক্ষর করে।
১৭৭৬- ব্রিটেন ম্যানহাটান দখল করে।
১৮১২- নেপোলিয়নের ফরাসিবাহিনী মস্কোর ক্রেমলিনে তাঁবু গাঁড়ে।
১৮১২- ফরাসি দখলদারি প্রতিহত করতে রুশরা মস্কোয় আগুন লাগিয়ে দেয়।
১৮২১- মধ্য আমেরিকার দেশ গুয়াতেমালা, এল সালভাদর, হন্ডুরাস, নিকারাগুয়া ও কোস্টারিকা স্পেনের উপনিবেশ থেকে মুক্ত হয়ে স্বাধীনতা লাভ করে।
১৮৩৫- ভারতে মুদ্রণযন্ত্রকে সংবাদ পরিবেশনের কাজে ব্যবহারের অনুমতি দিয়ে ‘লিবার্টি অব দ্য প্রেস অ্যাক্ট’ স্বাক্ষরিত হয়।
১৮৯৪- পিয়ং ইয়ংয়ের যুদ্ধে জাপানের কাছে চীন পরাস্ত হয়।
১৯১৭- আলেকজান্ডার কেরেনস্কি রাশিয়াকে প্রজাতন্ত্র ঘোষণা করেন।
১৯২৮- আলেকজান্ডার ফ্লেমিং পেনিসিলিন আবিষ্কার করেন।
১৯৩৫- জার্মানির স্বস্তিকাযুক্ত নতুন পতাকা চালু করে।
১৯৪৬- বুলগেরিয়া গণপ্রজাতন্ত্র ঘোষিত হয়।
১৯৫৯- নিকিতা ক্রশেভ প্রথম সোভিয়েত নেতা হিসেবে যুক্তরাষ্ট্র সফরে যান।
১৯৯১- দক্ষিণ-পূর্ব ইউরোপের মেসেডোনিয়া সাবেক যুগোশ্লাভিয়া থেকে আলাদা হয়ে স্বাধীনতা লাভ করে।
১৯৯৬- ক্রিকেটে বাংলাদেশ আইসিসি ট্রফি জয় করে।

জন্ম
১২৫৪- ইতালির ভেনিস অঞ্চলের বণিক ও বিখ্যাত পরিব্রাজক মার্কো পোলো।
১৮৫৭- যুক্তরাষ্ট্রের ২৭তম প্রেসিডেন্ট ও ১০ম প্রধান বিচারপতি উইলিয়াম হাওয়ার্ড ট্যাফ্ট।
১৮৭৬- জনপ্রিয় বাঙালি কথাসাহিত্যিক শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়।

তিনি ব্রিটিশ ভারতের প্রেসিডেন্সি বিভাগের হুগলি জেলার দেবানন্দপুর গ্রামে এক দরিদ্র ব্রাহ্মণ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার প্রথম উপন্যাস ‘বড়দিদি’ ভারতী পত্রিকায় প্রকাশিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সাহিত্যজগতে তার খ্যাতি ছড়িয়ে পড়ে। এরপর তিনি একে একে ‘বিন্দুর ছেলে ও অন্যান্য’, ‘পরিণীতা’, ‘বৈকুণ্ঠের উইল’, ‘পল্লীসমাজ’, ‘দেবদাস’, ‘চরিত্রহীন’, ‘নিষ্কৃতি’, ‘শ্রীকান্ত’, ‘দত্তা’, ‘গৃহদাহ’, ‘দেনাপাওনা’, ‘পথের দাবী’, ‘শেষ প্রশ্ন’ ইত্যাদি গল্প উপন্যাস এবং ‘নারীর মূল্য’, ‘স্বদেশ ও সাহিত্য’ প্রবন্ধ গ্রন্থ রচনা করেন। এগুলোর মধ্যে ‘শ্রীকান্ত’, ‘চরিত্রহীন’ ‘গৃহদাহ’, ‘দেনাপাওনা’ ও ‘পথের দাবী’ খুবই জনপ্রিয়তা লাভ করে। তার ‘পথের দাবী’ উপন্যাসটি বিপ্লববাদীদের প্রতি সমর্থনের অভিযোগে ব্রিটিশ সরকার বাজেয়াপ্ত করে। সাহিত্যকর্মে অসাধারণ অবদানের জন্য শরৎচন্দ্র কুন্তলীন পুরস্কার, জগত্তারিণী স্বর্ণপদক, বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষদের সদস্যপদ এবং কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিলিট উপাধি লাভ করেন।

১৯৪৬- একাডেমি বিজয়ী মার্কিন চলচ্চিত্র পরিচালক, চিত্রনাট্য লেখক অলিভার স্টোন।

মৃত্যু
৭০৬- সিরিয়ার সর্বশেষ সাহাবি হযরত উতবা (র.)।
১৯৮২- লেবাননের রাষ্ট্রপতি বাসির গামায়েল।
২০০৬- বাংলাদেশি চিত্রশিল্পী ও উদ্যোক্তা নিতুন কুণ্ডু।
২০১৭- প্রকৃতিবিদ, জীববিজ্ঞানী ও বিজ্ঞান লেখক দ্বিজেন শর্মা।

বাংলাদেশ সময়: ০০১০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৯
টিএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa