ঢাকা, বুধবার, ৫ আষাঢ় ১৪৩১, ১৯ জুন ২০২৪, ১১ জিলহজ ১৪৪৫

অর্থনীতি-ব্যবসা

‘এসএমই উদ্যোক্তাদের টিকে থাকতে পরিবেশবান্ধব ব্যবসা করতে হবে’

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৮ ঘণ্টা, মে ২৩, ২০২৪
‘এসএমই উদ্যোক্তাদের টিকে থাকতে পরিবেশবান্ধব ব্যবসা করতে হবে’

ঢাকা: এলডিসি উত্তরণ পরবর্তী সময়ে এসএমই উদ্যোক্তাদের টিকে থাকতে হলে অবশ্যই পরিবেশবান্ধব ব্যবসা করতে হবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

বৃহস্পতিবার (২৩ মে) আগারগাঁওয়ের বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) এসএমই ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে 'বাংলাদেশে টেকসই অর্থনৈতিক উন্নয়নের জন্য সবুজ এসএমই' সেমিনার বক্তারা এ কথা বলেন।



এসএমই ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (অতিরিক্ত দায়িত্ব) সালাহউদ্দিন মাহমুদের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. ফারহিনা আহমেদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন কল কারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের মহাপরিদর্শক (অতিরিক্ত সচিব) মো. আবদুর রহিম খান, এসএমই ফাউন্ডেশনের পরিচালক পর্ষদ সদস্য মির্জা নুরুল গণী শোভন এবং ইসমাত জেরিন খান।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস বিভাগের অধ্যাপক ড. সুবর্ণ বড়ুয়া উপস্থাপিত মূল প্রবন্ধের ওপর নির্ধারিত আলোচক হিসেবে অংশগ্রহণ করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আর্থ অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্সেস অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মো. জিল্লুর রহমান, অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ শাহাদত হোসেন সিদ্দিকী এবং পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) মহাব্যবস্থাপক দিলীপ কুমার চক্রবর্ত্তী।

সেমিনারে বক্তারা বলেন, এলডিসি উত্তরণ পরবর্তী সময়ে এসএমই উদ্যোক্তাদের টিকে থাকতে হলে অবশ্যই পরিবেশবান্ধব ব্যবসা করতে হবে। আবার এই এসএমই উদ্যোক্তাদের পরিবেশবান্ধব ব্যবসা করার ক্ষেত্রে নীতিগত, কাঠামোগত বা আর্থিক সমস্যাগুলো সমাধানের জন্য সরকারি-বেসরকারি অংশীজনদের এগিয়ে আসার জন্যও আহ্বান জানানো হয়।

ফাউন্ডেশনের মহাব্যবস্থাপক মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর হোসেনের সঞ্চালনায় উন্মুক্ত আলোচনা পর্বে বিভিন্ন উদ্যোক্তা, ব্যাংকার, সরকারি সংস্থার প্রতিনিধি, উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধিরা অংশ নেন। সেমিনারে প্রায় ২শ’ জন আমন্ত্রিত অতিথি অংশ নেন

উল্লেখ্য শিল্প মন্ত্রণালয়ের পৃষ্ঠপোষকতায় এসএমই ফাউন্ডেশন কর্তৃক আয়োজিত ১১তম জাতীয় ক্ষুদ্র ও মাঝারি (এসএমই) পণ্য মেলার অংশ হিসেবে এই সেমিনারটি আয়োজন করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭০৫ ঘণ্টা, মে ২৩, ২০২৪
জিসিজি/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।