ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

আদালত

৪ ওসির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩০৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ৭, ২০১৬
৪ ওসির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল

ঢাকা: রাজধানীর জিরো পয়েন্ট থেকে সদরঘাট পর্যন্ত ফুটপাত পরিষ্কার রাখতে হাইকোর্টের দেওয়া রায় কার্যকর না হওয়ায় চার পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

কেন তাদের বিরুদ্ধে  আদালত অবমাননার অভিযোগ আনা হবে না- তা জানতে চেয়ে সোমবার (০৭ নভেম্বর) এ রুল জারি করেন বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট বেঞ্চ।

পুলিশের চার কর্মকর্তা হলেন- বংশাল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুর-ই আলম সিদ্দিকী, সূত্রাপুর থানার আশরাফ উদ্দিন, কোতোয়ালি থানার আবুল হাসান ও শাহবাগ থানার আবু বকর সিদ্দিকী।

দুই সপ্তাহের মধ্যে তাদেরকে রুলের জবাব দিতে হবে।
  
এর আগে রোববার (০৬ নভেম্বর) হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের পক্ষে অ্যাডভোকেট মনজিল মোরসেদ আদালত অবমাননার মামলাটি করেন।

মনজিল মোরসেদ নিজেই আদালতে শুনানি করেন। তিনি বাংলানিউজকে বলেন, হাইকোর্টের রায়ের পর এখনও দখলমুক্ত হয়নি রাস্তা ও ফুটপাত। এ বিষয়ে চার থানার ওসিকে লিগ্যাল নোটিশ দেওয়া হলেও জবাব আসেনি। এ কারণে মামলা করা হয়। সোমবার এ মামলার শুনানি নিয়ে রুল জারি করেছেন আদালত।

২০১২ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকা জজকোর্টের আইনজীবী, বিচারপ্রার্থী ও বিচারকদের ট্রাফিক জ্যামের ভোগান্তি দূর করতে জিরো পয়েন্ট থেকে সদরঘাট পর্যন্ত ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ফুটপাত দখলমুক্ত রাখতে ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

আদালতের আদেশে বলা হয়, জিরো পয়েন্ট থেকে সদরঘাট পর্যন্ত ফুটপাত বা রাস্তার ওপর বালু, রড বা যেকোনো পণ্য রাখা, ভ্যানগাড়ি এবং ঠেলাগাড়ি পার্কিং করা, রাস্তার পাশে দোকানগুলোর পণ্যগুলো ফুটপাত বা রাস্তা দখল করে না রাখা, দোকান ও ফেরিওয়ালা, ফলের দোকান যেন না বসতে পারে, সেজন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।
 
একইসঙ্গে জিরো পয়েন্ট থেকে সদরঘাট পর্যন্ত ফুটপাত বা রাস্তার ওপর বালু, রড বা যেকোনো পণ্য রাখা, ভ্যানগাড়ি এবং ঠেলাগাড়ি পার্কিং করা, রাস্তার পাশে দোকানগুলোর পণ্যগুলো ফুটপাত বা রাস্তা দখল করে রাখা, দোকান ও ফেরিওয়ালা, ফলের দোকানসহ সকল যান চলাচলের প্রতিবন্ধকতা উচ্ছেদ/অপসারণ করার নির্দেশ কেন দেওয়া হবে না- তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছিলেন হাইকোর্ট।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০০ ঘণ্টা, নভেম্বর ০৭, ২০১৬
ইএস/ এএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa