ঢাকা, মঙ্গলবার, ৮ আষাঢ় ১৪২৮, ২২ জুন ২০২১, ১১ জিলকদ ১৪৪২

শিল্প-সাহিত্য

‘বিদ্রোহী’র ৯০ বছর পূর্তিতে আন্তর্জাতিক নজরুল সম্মেলন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩১২ ঘণ্টা, জুন ২২, ২০১১
‘বিদ্রোহী’র ৯০ বছর পূর্তিতে আন্তর্জাতিক নজরুল সম্মেলন

ঢাকা: জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ঐতিহাসিক বিদ্রোহী কবিতা রচনার ৯০ বছর পূর্তি উপলক্ষে দু’দিন ব্যাপী আন্তর্জাতিক নজরুল সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে।

আগামী ২৪ ও ২৫ জুন এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

১৯২২ সালে প্রথম প্রকাশিত হয় কাজী নজরুল ইসলামের বিখ্যাত কবিতা ‘বিদ্রোহী’। এটি প্রকাশ হওয়া মাত্রই নব জাগরণ সৃষ্টি হয়। সারা ভারতের সাহিত্য সমাজে খ্যাতি লাভ করেন নজরুল। দৃপ্ত বিদ্রোহী মানসিকতা এবং অসাধারণ শব্দবিন্যাস ও ছন্দের জন্য আজও বাঙালি মানসিকতায় কবিতাটি "চির উন্নত শির" বিরাজমান। কবিতাটি কিছু লাইন হচ্ছে এরকমÑ

বল    বীর-
               বল  উন্নত মম শির,
শির  নেহারি আমারি নত-শির ওই শিখর হিমাদ্রির !
                 বল     বীর-
বল   মহাবিশ্বের মহাকাশ ফাড়ি
        চন্দ্র সূর্য গ্রহ তারা ছাড়ি
         ভূলোক দ্যুলোক গোলক ভেদিয়া
          খোদার আসন আরশ  ছেদিয়া,
        উঠিয়াছি চির-বিস্ময় আমি বিশ্ব-বিধাত্রীর !
 মম   ললাটে রুদ্র ভগবান জ্বলে রাজ-রাজটীকা দীপ্ত জয়শ্রীর !
                 বল   বীর-
         আমি চির উন্নত শির।

২৪ জুন সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সম্মেলনে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের নজরুল গবেষকরা উপস্থিত থাকবেন।

এদের মধ্যে রয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রফেসর উইন্সটন ই ল্যাংলি, ড. রাসেল এল ম্যাকডারমেট, নেদারল্যান্ডসের ড. পিটার কাস্টার্স, চীনের মিস ইয়ং ওয়েই মিং এবং রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য ড. পবিত্র সরকার।  

এছাড়া ভারতের পশ্চিমবঙ্গ থেকে শিল্পী সুস্মিতা গোস্বামী, কৃষ্ণা মজুমদার, রামানুজ দাসগুপ্তসহ বাংলাদেশের ১৪ জন শিল্পী সম্মেলনে অংশ নেবেন।

বুধবার তথ্যমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘আন্তর্জাতিক সম্মেলনের মূল উদ্দ্যেশ্য হচ্ছে জাতীয় কবির রচনা এবং তার জীবনাদর্শকে সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে দেওয়া। গণমানুষের কবি নজরুল আধিপত্যবাদী শক্তির বিরুদ্ধে সারা জীবন লড়াই করেছেন। অসাম্প্রদায়িক ও মুক্ত বুদ্ধিসম্পন্ন মানুষের কাছে নজরুল আজ এক আদর্শের প্রতীক। ‘

সম্মেলনের উদ্বোধনী পর্বে নজরুল পুরস্কার-২০১০ প্রদান করা হবে।

এবার পুরস্কার পাচ্ছেন- গবেষণা ও অনুবাদে জাতীয় অধ্যাপক কবীর চেীধুরী এবং নজরুল সঙ্গীত সাধক ও স্বরলিপিকার নীলিমা দাস। এ পুরস্কার হিসাবে তারা ৫০ হাজার টাকার সঙ্গে একটি ক্রেস্ট ও সম্মাননা পত্র পাবেন।

২৪ জুন সকাল ১০টায় ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে এ সম্মেলনের উদ্ভোধন করা হবে। সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন তথ্যমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ এবং সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট প্রমোদ মানকিন।

এতে সভাপতিত্ব করবেন নজরুল ইন্সটিটিউটের ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর রফিকুল ইসলাম। কবি পরিবারের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছ বক্তব্য রাখবেন নজরুলের নাতনী খিলখিল কাজী।

বাংলাদেশ সময়: ১৩১০ ঘণ্টা, জুন ২২, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa