bangla news

আগরতলায় তিনটি বাম যুব সংগঠনের গণঅবস্থান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-২২ ৫:৪৪:৪৩ পিএম
গণঅবস্থানে যুব সংগঠনগুলোর নেতারা। ছবি: বাংলানিউজ

গণঅবস্থানে যুব সংগঠনগুলোর নেতারা। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা (ত্রিপুরা): ত্রিপুরার ১০ হাজার ৩২৩ অ্যাডহক শিক্ষকের বিকল্প চাকরির ব্যবস্থা, সরকারি বিভিন্ন দপ্তরে ছাঁটাই করা কর্মীদের পুনর্নিয়োগ ও বিভিন্ন সরকারি দপ্তরে শূন্যপদ অবিলম্বে পূরণের দাবিতে শুক্রবার (২২নভেম্বর) আগরতলায় গণঅবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে তিনটি বামপন্থি শ্রমিক ও যুব সংগঠন।

ভারতীয় যুব ফেডারেশন, উপজাতি যুব সংগঠন এবং সিআইটিইউ’র উদ্যোগে আগরতলার ওরিয়েন্ট চৌমুহনী এলাকায় একদিনের জন্য গণঅবস্থান করা হয়।

এতে উপস্থিত ছিলেন ত্রিপুরার সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার, সাবেক মন্ত্রী মানিক দে, ভারতীয় যুব ফেডারেশন ত্রিপুরা রাজ্য কমিটির সম্পাদক নবারুণ দেব, সিআইসিইউ’র নেত্রী সাবেক মুখ্যমন্ত্রী পাঞ্চালি ভট্টাচার্যসহ অন্য নেতারা।

গণঅবস্থানে বক্তব্যকালে সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার বর্তমান ভারত ও ত্রিপুরা সরকারের কড়া সমালোচনা করেন। তিনি অভিযোগ করেন, ক্ষমতাসীন দল ক্ষমতায় আসার আগে মানুষদের যেসব লোভনীয় প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, তার কোনো কিছুই পূরণ করছে না। উল্টো দেশে কর্মসংস্থান সংকুচিত করছে। ফলে, দেশে দিন দিন বেকারত্ব তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। মানুষের আর্থিক অবস্থার অবনতি ঘটছে, অপরদিকে ধনিক শ্রেণীর জন্য এই সরকার ক্রমশ ছাড় দিচ্ছে। এতে দেশে অর্থনৈতিক বৈষম্য বাড়ছে। এই অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে সবাইকে প্রতিবাদ করতে হবে।

গণঅবস্থানে উপস্থিত অন্য বক্তারাও তীব্র ভাষায় সরকারের সমালোচনা করেন। গণঅবস্থানের যোগ দিতে রাজ্যের আটটি জেলা থেকে অসংখ্য তরুণ-তরুণী আগরতলায় আসেন।

বাংলাদেশ: ১৭৪৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ২২, ২০১৯
এসসিএন/একে

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   আগরতলা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-22 17:44:43