bangla news

মুক্তিযুদ্ধস্মৃতির স্থান চিহ্নিত হবে গুগল ম্যাপে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-১৯ ৫:২৭:২৯ পিএম
মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত জায়গা ঘুরে দেখছেন প্রতিনিধিরা। ছবি: বাংলানিউজ

মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত জায়গা ঘুরে দেখছেন প্রতিনিধিরা। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা (ত্রিপুরা): মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থানগুলো শিগগিরই গুগল ম্যাপের মাধ্যমে বিশ্বের যেকোনো প্রান্ত থেকে দেখা যাবে। এ জন্য নিরলস কাজ করে যাচ্ছে মুক্তিযোদ্ধা অ্যাকাডেমি ট্রাস্ট। 

বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) বাংলানিউজকে একথা জানিয়েছেন ট্রাস্টের চেয়ারম্যান ড. আবুল কালাম আজাদ।

তিনি বলেন, মুক্তিযোদ্ধা অ্যাকাডেমি ট্রাস্ট বাংলাদেশ ও ভারত সরকারের কাছ থেকে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বিজড়িত এলাকাগুলোর মানচিত্র সংগ্রহ করছে, যেন সেগুলো সঠিকভাবে চিহ্নিত হয়। চিহ্নিতকরণ হয়ে গেলে গুগল ম্যাপে এগুলোর সেক্টরের নাম, ক্যাম্প ও শরণার্থী শিবির চিহ্নিত করার কাজ শুরু হবে।
 
ড. আবুল কালাম আজাদ বলেন, ১৯৭১ সালে মুক্তিযোদ্ধারা বিভিন্ন সেক্টরে বিভক্ত হয়ে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর সঙ্গে লড়াই করেছিলেন। এই সেক্টরগুলোর মধ্যে অন্যতম চার নম্বর সেক্টর, যা ত্রিপুরার বর্তমান সিপাহীজলা জেলার অন্তর্গত মেলাঘর, সোনামুড়া, চড়িলাম ইত্যাদি জুড়ে ছিল। এই সেক্টরের অধীনে অনেকগুলো ক্যাম্প, প্রশিক্ষণ কেন্দ্র ও শরণার্থী শিবির ছিল। এগুলোও গুগল ম্যাপে চিহ্নিত করা হবে।
 
‘আগামী এক বছরের মধ্যে এই কাজ সম্পন্ন করা হবে। এর মাধ্যমে নতুন প্রজন্মের কাছে আরও সহজভাবে মুক্তিযুদ্ধের স্থান ও ঘটনাবলী তুলে ধরা সম্ভব হবে। এতে নতুন প্রজন্মের মধ্যে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা জাগ্রত হবে।’

ত্রিপুরায় অবস্থিত মুক্তিযুদ্ধের চার নম্বর সেক্টরের অন্তর্গত চড়িলাম এলাকার গঙ্গা, যমুনা ক্যাম্পের নেতৃত্বে ছিলেন প্রয়াত ভারতীয় সেনাবাহিনীর ক্যাপ্টেন বিভু রঞ্জন চ্যাটার্জি। তার ছেলে রাজীব চ্যাটার্জি মুক্তিযোদ্ধা অ্যাকাডেমি ট্রাস্টের এই উদ্যোগের কথা শুনে ট্রাস্টের চেয়ারম্যানসহ সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

গত ৪ সেপ্টেম্বর মুক্তিযোদ্ধা ট্রাস্টের ৩৫ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল ত্রিপুরায় এসে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বিজড়িত বিভিন্ন জায়গা ঘুরে দেখেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৭২৫ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৯
এসসিএন/একে

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   আগরতলা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-19 17:27:29