bangla news

ত্রিপুরায় ১১৩৫টি ক্লাবে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-০৭ ৫:২৬:০২ পিএম
ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণকালে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব। ছবি: বাংলানিউজ

ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণকালে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা (ত্রিপুরা): ত্রিপুরা সরকারের ক্রীড়া এবং যুব কল্যাণ দফতরের উদ্যোগে রাজ্যের নথিভূক্ত ১১৩৫টি ক্লাবে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।

শনিবার (০৭ সেপ্টেম্বর) ত্রিপুরার রাজধানী আগরতলায় নেতাজি সুভাষ রোডের এনএসআরসিসি ইনডোর অডিটোরিয়ামে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ করেন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব। 

এ সময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ত্রিপুরা সরকারের ক্রীড়া এবং যুব কল্যাণ দফতরের মন্ত্রী মনোজ কান্তি দেব, ক্রীড়া এবং যুব কল্যাণ দফতরের সচিব ড. দেবাশীষ বসুসহ ক্রীড়া দফতরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

অনুষ্ঠানে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব বলেন, ভারতবাসীকে সুস্থ ও সতেজ রাখতে চলতি বছরের ২৯ আগস্টকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ‘ফিট ইন্ডিয়া দিবস’ হিসেবে ঘোষণা দিয়েছেন। 

মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, ১৯৭২ সালে ত্রিপুরা পূর্ণ রাজ্যের মর্যাদা লাভ করলেও ২০১৯ সালে রাজ্যের ক্লাব গুলোতে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ কর্মসূচি সূচনা করতে হচ্ছে।

তিনি বলেন, ভারতের অন্য কোনো রাজ্যের পাড়ায় পাড়ায়, গলিতে-গলিতে ক্লাব সংস্কৃতি নেই শুধুমাত্র ত্রিপুরা এবং পশ্চিমবঙ্গে এ সংস্কৃতি রয়েছে। ক্লাবগুলোকে এগিয়ে নেওয়া উচিত। 

মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যের প্রতিটি ক্লাবের প্রতি আহ্বান জানান, ক্লাবের সদস্যরা যেন নেশাবিরোধী অভিযানে সামিল হন এবং স্থানীয় লোকজনকে বিভিন্ন খেলাধুলার নেশায় জাগিয়ে তোলে।

অনুষ্ঠানে ক্রীড়া এবং যুব কল্যাণ দফতরের মন্ত্রী মনোজ কান্তি দেব বলেন, দীর্ঘদিন রাজ্যের ঐতিহ্যবাহী ফুটবল টুর্নামেন্ট বন্ধ ছিল। বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর এ টুর্নামেন্ট আবার চালু করেছে। এ বছর রাজ্যে অনূর্ধ্ব ১৭ জাতীয় ফুটবল টুর্নামেন্টের আসর হবে।

মন্ত্রী জানান, ভারতের একমাত্র নারী অলিম্পিয়াড ত্রিপুরা রাজ্যের মেয়ে দীপা কর্মকার উন্নত মানের প্রশিক্ষণ সামগ্রী না থাকায় অনুশীলন করতে পারতেন না। এ সমস্যা দূর করা হয়েছে। গত কয়েক মাস আগে দীপার কথা চিন্তা করে আগরতলায় বিদেশ থেকে ক্রীড়া সামগ্রী আমদানি করা হয়েছে।

অনুষ্ঠান শেষে মুখ্যমন্ত্রী ও অতিথিরা ক্লাবের কর্মকর্তাদের হাতে ক্রীড়া সামগ্রী তুলে দেন। 

এদিন, মোট এক হাজার ১৩৫টি ক্লাবে বিভিন্ন ধরনের ক্রীড়া সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭০০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৭, ২০১৯
এসসিএন/আরআইএস/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-07 17:26:02