bangla news

কমিশনের বিরুদ্ধে আদালতে বামফ্রন্ট, যাচ্ছে কংগ্রেসও

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৫-০৯ ১২:৫৮:৫৯ পিএম
বামফ্রন্ট ও কংগ্রেসের লোগো

বামফ্রন্ট ও কংগ্রেসের লোগো

আগতলা (ত্রিপুরা): পশ্চিম ত্রিপুরা আসনের ভোট নিয়ে সারা রাজ্যের রাজনীতি সরগরম এমনকি পশ্চিম আসনের দিকে নজর সারাদেশের মানুষের। এবার এ আসনের নির্বাচনের অভিযোগ পৌঁছেছে ভারতের শীর্ষ আদালত পর্যন্ত। যা ত্রিপুরা রাজ্যের ইতিহাসে প্রথম। নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক দল সুপ্রিম কোর্টে গেছে।

বুধবার (৮ মে) পশ্চিম আসনের ১৬৮টি বুথে পুনঃভোটের ঘোষণা দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। 

এদিন ভারতের রাজধানী দিল্লিতে সুপ্রিম কোর্টে নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে এবং গোটা পশ্চিম আসনে পুনঃভোট চেয়ে আপিল করেছেন বামফ্রন্ট সমর্থিত সিপিআই (এম) দলের প্রার্থী শঙ্কর প্রাসাদ দত্ত। 

বৃহস্পতিবার (৯ মে) ত্রিপুরা রাজ্য বামফ্রন্টের আহ্বায়ক বিজন ধর বাংলানিউজকে এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি জানান, এ বিষয়ে তারা সুপ্রিম কোর্টের রায় মেনে সিদ্ধান্ত নেবেন। সুপ্রিম কোর্ট কি রায় দেন, এদিকে তাকিয়ে আছেন তারা। 

অন্যদিকে বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টে এ আসনের ভোট নিয়ে কংগ্রেস দল আপিল করবে বলে বাংলানিউজকে জানিয়েছেন দলের সহ-সভাপতি তাপস দে।

এ বিষয়ে ত্রিপুরার ক্ষমতাসীন দল রাজ্য বিজেপির মুখপাত্র নবেন্দু ভট্টাচার্যকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, পুনঃভোটের জন্য তাদের দল সম্পূর্ণ প্রস্তুত। তাদের দাবি, পুনঃভোট হলে আগের তুলনায় বিরোধীদের সঙ্গে তাদের জয়ের ব্যবধান আরও বাড়বে। 

নবেন্দু ভট্টাচার্য বলেন, সম্পূর্ণ আসনে ভোট হলেও তাদের কোনও সমস্যা নেই। তবে তার মন্তব্য, পুনঃভোট হওয়াতে মানুষের কিছুটা সমস্যা হবে।

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের পঞ্চম দফার ভোট শেষ। কিন্তু কোনও রাজ্যেই বিপুল সংখ্যক আসনে পুনঃভোট করাতে হয়নি নির্বাচন কমিশনকে। ত্রিপুরার পশ্চিম আসনে ১ হাজার ৬৭৯টি বুথের মধ্যে ১৬৮টি বুথে পুনঃভোটের ঘোষণা দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। যা একদিক থেকে বিরোধীরা যে অভিযোগ তুলেছে সে অভিযোগেরই সত্যতা প্রমাণ করছে বলে বিরোধী দলগুলোর মত। তাই তাদের দাবি, আংশিক নয়, পুরো পশ্চিম ত্রিপুরা লোকসভা আসনেই যেন পুনঃভোট করে নির্বাচন কমিশন। 

বাংলাদেশ সময়: ১২৫৭ ঘণ্টা, মে ০৯, ২০১৯
এসসিএন/আরবি/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-05-09 12:58:59