ঢাকা, মঙ্গলবার, ১০ বৈশাখ ১৪৩১, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১৩ শাওয়াল ১৪৪৫

বাণিজ্যমেলা

মেলায় নারীদের পছন্দ সবজি কাটার

স্টাফ করেসপন্ডেট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩৮ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ৪, ২০১৪
মেলায় নারীদের পছন্দ সবজি কাটার ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ঢাকা: ঢাকা আর্ন্তজাতিক বাণিজ্য মেলায় নারীদের পছন্দের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে সবজি কাটার। মেলায় পাওয়া যাচ্ছে ১১ ধরনের কাটার মেশিন, এসব মেশিন দিয়ে আকর্ষণীয় নকশা করে সব ধরনের সবজি কাটা যায়।



কাটারগুলো হচ্ছে স্টিল কাটার, অটো চপার, ফ্রেন্স ফ্রাই কাটিং, পিজা কাটার, করলা কাটার, পিলার কাটার, নাইফ কাটার, কাচি, কাটিং প্লেট ও একটি হ্যান্ড সেফটি।

এসব কাটার দিয়ে আলু, পিঁয়াজ, রসুন, আদা, মুলা, টমেটো, শসা, গাজর, বাঁধা কপি, শাকসহ বিভিন্ন সবজি রান্না ও খাওয়ার উপযোগী নকশা করে কাটা যাবে।

১১টি কাটারের এই সেটের দাম ১১শ’ টাকা। আলাদাভাবে কিনতে গেলে দাম পড়বে ২২শ’ টাকা। মেলা উপলক্ষে ৫০ শতাংশ ছাড় দিয়ে বিক্রি করা হচ্ছে বলে জানান, বিক্রয় প্রতিষ্ঠান সনেক্স ইন্টারন্যাশনালের কর্মকর্তা ইমতিয়াজ সুলতান।

মেলার ১৭ নম্বর প্যাভিলিয়নে বিক্রি হচ্ছে এসব কাটার মেশিন। এছাড়া আরও দুটি দোকানে পাওয়া যাচ্ছে একই দামে।

এসব কাটার আলাদাভাবে কিনতে গেলে স্টিল কাটার ৫শ’, অটো চপার ৪শ’, ফ্রেন্স ফ্রাই ৫শ’, টমোটে কাটার ৩শ’, পিলার ১শ;, ন্যাপ ১শ’, ডিম ফিটার পিলার ১শ’, পিলার ১শ’, কাটিং বোর্ড ১শ’ টাকায় পাওয়া যাবে।

ইমতিয়াজ সুলতান বলেন, মেলা উপলক্ষে ৫০ শতাংশ ছাড় দিয়ে আমরা প্রচারণা চালাচ্ছি। বাইরে কিনতে গেলে ২ হাজার ২শ‘ টাকা লাগবে।

এই কাটার দিয়ে সবজি ও অন্যান্য জিনিস কাটতে কোনো ঝুঁকি নেই। নিরাপদ ও স্বাচ্ছন্দ্যে কম সময়ে কাজ করতে পারবেন গৃহিনীরা।

মেলায় সবজি কাটার দোকান সনেক্স ইন্টারন্যাশনালের সামনে দাঁড়িয়ে অনেক সময় নিয়ে দেখে একসেট কাটার কিনেছেন রাবেয়া বেগম। তিনি বলেন, দেখে তো কাটার সেট কিনে নিলাম। এখন বাসায় গিয়ে কাটতে পারব কি-না ভাবছি!

আব্দুস সালাম সবজিগুলো বিভিন্ন নকশায় কাটা দেখে শুধু স্টিল কাটার কিনেছেন। তিনি বলেন, কাটার দিয়ে কাটার পরে সবজিগুলো অনেক সুন্দর দেখা যাচ্ছে। তাই আলাদাভাবে সাড়ে ৪শ’ টাকা দিয়ে শুধু একটি স্টিল কাটার কিনেছি।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩৯ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৪, ২০১৪

*মেলায় আকর্ষণ বেঙ্গলের ফেনসি বাস্কেট

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।