ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ৩০ মে ২০২৪, ২১ জিলকদ ১৪৪৫

বাণিজ্যমেলা

কাবাবের ধোঁয়ায় অতিষ্ঠ দর্শনার্থীরা!

জিএম মুজিবুর, স্টাফ ফটো করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২২২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০১৪
কাবাবের ধোঁয়ায় অতিষ্ঠ দর্শনার্থীরা! ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মেলা প্রাঙ্গণ থেকে:  বেশ জমে উঠেছে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা। মেলায় বিভিন্ন স্টল ঘুরে ঘুরে পণ্য দেখছেন এবং কিনছেন আগত দর্শনার্থীরা।

পসরা সাজানো স্টলে বিক্রেতাদের উপস্থিতি হাসি ফোটাচ্ছে ক্রেতাদের মুখে।

কিন্তু মেলার বিভিন্ন খাবার দোকানের কাবাব তৈরির চুলোর ধোঁয়ায় অতিষ্ঠ ক্রেতা-বিক্রেতা-দর্শনার্থী সবাই।
 
মেলা প্রাঙ্গণে এবার মোট ১০টি খাবার দোকান বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। আর সব ক’টি দোকানের সামনেই খোলা অবস্থায় কাবাব তৈরি করা হচ্ছে। কাবাব তৈরির সময় স্বাভাবিকভাবেই অবিরত নির্গত হচ্ছে ধোঁয়া। এ কারণে, খাবার দোকানগুলোর সামনে দিয়ে কোনো স্টলে যেতে দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে দর্শনার্থীদের। বিশেষ করে খাবার দোকানগুলো মাড়িয়ে যেতে শিশু-কিশোরদের দুর্ভোগ লক্ষ্য করা যায়।
 
মেলায় হাজির বিরিয়ানি অ্যান্ড কাবাবের মোট ৩টি স্টল রয়েছে। প্রতিটি স্টলের সামনেই খোলা পরিবেশে কাবাব তৈরি করা হচ্ছে।

হাজির বিরিয়ানি অ্যান্ড কাবাবের ম্যানেজার রায়হান বাংলানিউজকে বলেন, চাপের কারণে ধোঁয়া নির্গমনের কোনো ফানেল তৈরি করা যায়নি। তাই উন্মুক্ত অবস্থায় ধোঁয়া ছাড়তে হচ্ছে।

এ সমস্যা সাময়িক দাবি করে তিনি বলেন, সব ঠিক হয়ে যাবে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, খাবারের দোকানগুলো তাদের নির্দিষ্ট জায়গার বাইরে কাবাব তৈরির চুলো বসিয়েছে। এ কারণে, ধোঁয়া নির্গমনের জন্য কোনো ফানেল বসানো যায়নি।
 
দর্শনার্থী নাজমা আক্তার বাংলানিউজকে বলেন, দোকানের সামনে এমন ধোঁয়া ছাড়লে আমাদের চলাচলে অসুবিধা হয়। এমনকি আশপাশের দোকানগুলোতেও ঘুরতে অসুবিধা হচ্ছে।

তিনি বলেন, বিপুল জনসমাগমস্থলে এভাবে ধোঁয়া ছাড়া অনৈতিক কাজ। মেলা কর্তৃপক্ষের এ বিষয়ে নজর দেওয়া উচিত।

তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ধোঁয়‍ায় বিশেষ করে বাচ্চাদের চলাচল করতে কষ্ট হচ্ছে। বাচ্চারা স্বাভাবিকভাবে নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হওয়ায় অনেক অভিভাবক মেলায় প্রবেশ করেও বাধ্য হয়ে ফিরে যান।
 
বাংলাদেশ সময়: ২১১৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০১৪
সম্পাদনা: হুসাইন আজাদ, নিউজরুম এডিটর

তিল ধারণের ঠাঁই নেই বাণিজ্যমেলায়
শীতে আইসক্রিমে আগ্রহ নেই ক্রেতাদের
মেলায় নতুন আকর্ষণ ‘নাইন ডি মুভি’

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।