ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

পর্যটন

পর্যটন কেন্দ্রে সাইকেল পার্কিংয়ের দাবি

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮২৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১
পর্যটন কেন্দ্রে সাইকেল পার্কিংয়ের দাবি

ঢাকা: দ্রুত পর্যটন প্রবৃদ্ধি অর্জনে তারুণ্যকে সাইক্লিংয়ে উৎসাহিত করতে দেশের বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্রে সাইকেল পার্কিংয়ের ব্যবস্থা রাখার দাবি জানিয়েছে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা) ও বাংলাদেশ ট্যুরিস্ট সাইক্লিং কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) বিশ্ব পর্যটন দিবস উপলক্ষে জাতীয় জাদুঘরের সামনে ‘নিরাপদ ভ্রমণ করুন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন’ স্লোগানকে সামনে রেখে অনুষ্ঠিত  সাইকেল র‌্যালি থেকে এ দাবি জানানো হয়।

বাংলাদেশ ট্যুরিস্ট সাইক্লিংয়ের প্রধান সমন্বয়ক আমিনুল ইসলাম টুব্বুসের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পবা’র চেয়ারম্যান আবু নাসের খান।

পবা’র চেয়ারম্যান বলেন- যাতায়াতের জন্য সাইকেল অন্যতম পরিবেশবান্ধব একটি বাহন। কিন্তু অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় আমরা সাইকেলে চলাচল নিরাপদ করতে পারিনি। আমাদের অন্যতম প্রধান উদ্দেশ্য হবে- নিজেরা নিরাপদে সাইকেল চলাচল করবো এবং অন্যের অসুবিধার কারণ হবো না। এ সময় সড়কে সাইকেল লেনসহ চলাচলের অন্যান্য প্রতিবন্ধকতা দূর করতে বিশ্ববিদ্যালয়সহ অন্যান্য কর্তৃপক্ষের ভূমিকা প্রত্যাশা করেন তিনি।

র‌্যালিতে আরও অংশ নেন বাংলাদেশ মানবাধিকার সমিতির চেয়ারম্যান মনজুর হোসেন ঈশা, বাংলাদেশ ট্যুরিস্ট সাইক্লিংয়ের সমন্বয়ক রজিনা আক্তার দুনিল, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) সাইক্লিং ক্লাবের সভাপতি নাজমুল হাসান, বাংলাদেশ সাইকেল লেন বাস্তবায়ন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আরিফ আহমেদ, বিডিক্লিকের সহ-সভাপতি দিদার হোসেন পাটোয়ারী, গ্রিনফোর্সের সদস্য আহসান হাবীব প্রমুখ।

বক্তারা বলেন- সাইকেল চালানো শুধু শারীরিক ব্যায়াম নয়। এটি সুন্দর মানসিকতা গড়ে তুলতে সহায়তা করে। এছাড়াও বাংলাদেশে পর্যটন শিল্পের অপার সম্ভাবনা রয়েছে। ধীর গতিতে হলেও এই শিল্পের উন্নয়ন লক্ষ্য করা যাচ্ছে। বিগত কয়েক বছরের অবকাঠামোগত উন্নয়ন, তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার, নিরাপত্তা ব্যবস্থার উন্নয়ন, রাজনৈতিক ও সামাজিক স্থিতিশীলতার কারণে এই অগ্রগতি। এর ধারাবাহিকতায় ২০১৯ সালে ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের (ডব্লিউইএফ) ট্রাভেল অ্যান্ড ট্যুরিজম কমপেটেটিভনেস রিপোর্টে ১২৫ তম অবস্থান করে নিয়েছে বাংলাদেশ।

বক্তারা আরও বলেন, করোনাকালে মানুষের আয় কমে গেছে। এর বিরূপ প্রভাব পড়েছে বিনোদন ও ভ্রমণের ওপর। বর্তমান পর্যটন শিল্পকে বাঁচাতে ট্যুরিস্ট সাইক্লিং সেবার কোনো বিকল্প নেই। করোনা মহামারিতে সাইক্লিংয়ের গুরুত্ব বাড়ার কারণে বিডি ট্যুরিস্ট সাইক্লিং সেবা চালু করা হয়েছে। এ সময় সংগঠনের নেতারা বেশ কিছু সুপারিশ তুলে ধরেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১
এমআইএস/এনএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa