bangla news

শাহজালাল বিমানবন্দরকে ৩০ বছরের উপযোগী করা হচ্ছে

554 |
আপডেট: ২০১৪-০৫-২১ ৬:৫৬:০০ এএম
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন বলেছেন, হযরত শাহজালাল (র.) বিমান বন্দরকে ২০৪০ সাল পর্যন্ত কীভাবে ব্যবহার করা যায়, সে জন্য কাজ করছে সরকার।

ঢাকা: বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন বলেছেন, হযরত শাহজালাল (র.) বিমান বন্দরকে ২০৪০ সাল পর্যন্ত কীভাবে ব্যবহার করা যায়, সে জন্য কাজ করছে সরকার।

এজন্য নতুন রানওয়ে, টার্মিনাল নির্মাণসহ নানা অবকাঠামাগত কাজ হাতে নেওয়া হয়েছে।
    
বুধবার বিকেলে হযরত শাহজালাল  (র.) আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর পরিদর্শন করতে এসে সাংবাদিকদের এসব কথা জানান তিনি।

এসময় মন্ত্রী বলেন, নতুন একটি বিমানবন্দর চালু করা যেহেতু সময় সাপেক্ষ ব্যাপার, তাই, এই বিমান বন্দরটিকে কীভাবে আরো ২৫ থেকে ৩০ বছর ব্যবহার করা যায়, তার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

বিমানবন্দরের পাশে অনেক বহুতল ভবন ও পাঁচতারা হোটেল নির্মাণের ফলে উড়োজাহাজ উড্ডয়নের ক্ষেত্রে কোনো সমস্যা হবে কী জানতে চাইলে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, বিমান বন্দরের পাশে যেসব ভবন ও হোটেল নির্মাণ করা হচ্ছে, তা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

তা উড়োজাহাজ উড্ডয়নের কোনো বাধা হবে না বলেও জানান তিনি।

পরিদর্শনের সময় মন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন- বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন সচিব খোরশেদ আলম চৌধুরী, বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের (বেবিচক) চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মাহমুদ হোসেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৪০ ঘণ্টা, মে ২১, ২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2014-05-21 06:56:00