ঢাকা, শুক্রবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৮, ২৫ জুন ২০২১, ১৪ জিলকদ ১৪৪২

তারার ফুল

প্রায় দুইশত গান তৈরি করেছি: সাজিদ সরকার

ওমর ফারুক বিশাল, নিউজরুম এডিটর | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৪, ২০২১
প্রায় দুইশত গান তৈরি করেছি: সাজিদ সরকার সাজিদ সরকার। ছবি: রাজীন চৌধুরী

সময়ে আলোচিত সংগীত পরিচালক সাজিদ সরকার। তার সংগীতায়োজনে বেশ কিছু গান শ্রোতামহলে বেশ সাড়া ফেলেছে।

কাজের সফলতা বজায় রেখে নিয়মিত তৈরি করছেন নতুন গান। নন্দিত এই সংগীত পরিচালকের সঙ্গে কথা হয়েছে বাংলানিউজের। পাঠকের জন্য তা তুলে ধরা হলো-

বাংলানিউজ: নতুন কার কার জন্য গান তৈরি করছেন?
সাজিদ সরকার: বেশ কয়েকজন শিল্পীর জন্য গান তৈরি করছি। এ তালিকায় রয়েছেন- মিনার রহমান, তানজীব সারোয়ার, সুস্মিতা আনিস প্রমুখ। এর মধ্যে মিনার ও তানজীবের একাধিক গানের সংগীতায়োজন করছি।

বাংলানিউজ: করোনা আতঙ্কের মধ্যেও বেশ কিছু গান তৈরি করেছেন। এর মধ্যে প্রশংসিত কয়েকটি গান সম্পর্কে জানতে চাই।
সাজিদ সরকার: সাড়া জাগানো দুটি গানের কথা বলতে চাই। একটি তানজীবের কণ্ঠে ‘ডুবে ডুবে’ অন্যটি মিনারের ‘কেউ কথা রাখেনি’। দুটি গানই গত বছর প্রকাশ পায় এবং ইতোমধ্যে গানগুলো কোটি ভিউর ঘর অতিক্রম করেছে।

বাংলানিউজ: নতুন বছরে আপনার তৈরি কোনও গান প্রকাশ পেয়েছে?
সাজিদ সরকার: হ্যাঁ, ১ জানুয়ারি প্রকাশ পেয়েছে শূন্য ব্যান্ডের নতুন গান ‘বিবিয়া’। গানটির সংগীতায়োজন আমার করা। প্রকাশের পর থেকেই শ্রোতারা গানটি বেশ ভালোভাবেই গ্রহণ করেছেন। এছাড়া বুশরা শাহরিয়ারের জন্য তৈরি করেছি ‘তোমায় যদি’ শিরোনামের একটি গান, যেটি সম্প্রতি গায়িকার অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ পেয়েছে।

সাজিদ সরকার।  ছবি: রাজীন চৌধুরী

বাংলানিউজ: করোনার নেতিবাচক প্রভাব আমাদের সবার জীবনেই পড়েছে। আপনি তো নিয়মিত গান তৈরি করছেন। তো, করোনাকালীন সময়ে আপনার কাজ এবং ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা শুনতে চাই।
সাজিদ সরকার: ভালো বলার কোনও অবকাশ নেই। আমরা সবাই তো মানসিকভাবে বিধ্বস্ত ছিলাম। বিশেষ করে করোনা শুরুর কয়েক মাস তো সবার মধ্যেই বেশ আতঙ্ক তৈরি হয়েছিল, অনেকটা বাঁচা-মরার লড়াইয়ের মত। এ সময়ে তো অনেকে ঘর থেকেই বের হননি। কাজের পরিবেশন ছিল না। তাই স্বাভাবিকভাবেই আমাদের স্বাভাবিক জীবনযাপনে ব্যত্যয় ঘটেছে।

বাংলানিউজ: এখন তো পরিবেশ কিছুটা স্বাভাবিক হয়েছে। মানে, সীমিত আকারে সবাই কাজ করছেন। আপনি কি প্রত্যাশানুরূপ কাজ করতে পারছেন?
সাজিদ সরকার: সবাই শারীরিকের পাশাপাশি মানসিক ও অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। আর এ ক্ষতি কাটিয়ে ওঠতে বেশ সময় লাগবে। যে কারণে প্রত্যাশানুরূপ কাজ এখন সম্ভব না। তাই, এই মুহূর্তে একটাই প্রত্যাশা- করোনা পরিস্থিতি দূর হোক। আপাতত এর বেশি কিছু চাওয়ার নেই।

বাংলানিউজ: আপনার এক দশকের সংগীত ক্যারিয়ার। দীর্ঘ এ সময়ে আপনার তৈরি গানের সংখ্যা কেমন হতে পারে!
সাজিদ সরকার: হুম, প্রায় দুইশত গান তৈরি করেছি। এর মধ্যে ১৫০- এর বেশি অডিওতে এবং নাটক-সিনেমা মিলিয়ে ৪৫টির মত হবে। বেছে বেছে কাজ না করলে হয়তো সেটি দ্বিগুন কিংবা আরও বেশিও হতে পারতো! তবে, নিজের কাজ নিয়ে আমি উচ্ছ্বসিত।

বাংলানিউজ: এবার প্রেম-ভালোবাসা সম্পর্কে জানতে চাই। শুনতে চাই, বিয়ে করছেন কবে?
সাজিদ সরকার: কাজ নিয়েই আছি, প্রেম-ভালোবাসার সময় হয় না। সত্যি বলছি, এসবে নাই। বিয়ে নিয়েও আপাতত কোনও পরিকল্পনা করিনি। তবে, সময় হলে সবই জানবেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৪, ২০২১
ওএফবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa