ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯, ১২ আগস্ট ২০২২, ১৩ মহররম ১৪৪৪

খেলা

খেলাধুলার মাধ্যমে দুই বাংলার মিলনের ডাক বসুন্ধরা এমডির

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৩৩ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২২
খেলাধুলার মাধ্যমে দুই বাংলার মিলনের ডাক বসুন্ধরা এমডির

কলকাতা: খেলাধুলার মাধ্যমে দুই বাংলার মিলনের ডাক দিয়েছেন বসুন্ধরা এমডি ও শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্র লিমিটেডের চেয়ারম্যান সায়েম সোবহান আনভীর।

তিনি বলেছেন, এপার বাংলা ওপার বাংলা নয়, বাংলা আসলে একটাই।

আসুন খেলাধুলার মাধ্যমে দুই বাংলাকে এক করি।  

বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) কলকাতায় সায়েম সোবহান আনভীরকে সংবর্ধনা দেয় ভারতের ঐতিহ্যবাহী ফুটবল ক্লাব ইস্টবেঙ্গল। ওই অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। এদিন তাকে ক্লাবের আজীবন সদস্য পদ প্রদান করা হয়।  

শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্রের চেয়ারম্যান সায়েম সোবহান আনভীর বলেন, আপনাদের আন্তরিকতা আমাকে শুধু মুগ্ধ করেনি, আমাকে ভালোবাসা দিয়ে আপনারা কিনে নিয়েছেন। আমিও আপনাদের বাংলাদেশে আমন্ত্রণ জানাচ্ছি। এখানে অনেকবার শুনছি এপার বাংলা-ওপার বাংলা। আসলে বাংলাতো একটাই, ভাষাতো এক, মানুষগুলো তো এক, শুধু মাঝখানে একটা লাইন এসে গেছে। তাই বলে খেলা বন্ধ থাকবে? আসুন বাংলাকে খেলাধুলার মাধ্যমে এক করি। আমি চাই শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্রের সঙ্গে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের খেলা হোক। আমি আশা করব, ক্লাবের কর্মকর্তারা আমার প্রস্তাব গ্রহণ করবেন। খেলার পুরো স্পনসর বসুন্ধরা করবে।

তিনি বলেন, ইস্টবেঙ্গল ক্লাবকে সব সময় নিজের ক্লাব বলেই ভেবেছি। তাই এই ক্লাবের পক্ষ থেকে যখন আমন্ত্রণ আসে, তখন আর ‘না’ বলিনি। এই অনুষ্ঠানে ইস্ট বেঙ্গল ক্লাব হৃদয় দিয়ে আমাদের কাছে টেনে নিয়েছে। আমরা চাই দুই বাংলার ক্রীড়াপ্রেমী মানুষ ও সাধারণ মানুষ ভবিষ্যতে আরো কাছাকাছি আসুক।

সংবর্ধনায় ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের পক্ষ থেকে সোবহান দম্পতির হাতে তুলে দেওয়া হয় ক্লাবের লাল-হলুদ জার্সি, উত্তরীয়, ক্লাবের গোল্ড কয়েন, ফলের বাস্কেট, কলকাতার নানা স্বাদের মিষ্টি, বাংলার পাঞ্জাবি ও শাড়ি।

শেখ রাসেল ক্রীড়াচক্রের সঙ্গে কলকাতাবাসীকে পরিচয় করিয়ে দিতে গিয়ে বসুন্ধরা এমডি বলেন, শেখ রাসেল হলেন বাংলাদেশের জাতির পিতার সন্তান। আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই ক্লাবের প্রধান উপদেষ্টা। উনি আমাকে এই ক্লাবের দায়িত্ব দিয়েছেন চালিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য।

বসুন্ধরা কিংসের সঙ্গে ইস্টবেঙ্গলের সহযোগিতার বিষয়ে তিনি বলেন, আমাকে যা বলবেন সব করে দেবো। আপনারা আন্তরিকতা দিয়ে আমাকে কিনে নিয়েছেন।

এ সময় ইস্টবেঙ্গলের সভ্য সমর্থকরা তাকে হাততালি দিয়ে অভিনন্দন জানান।  

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের সচিব কল্যাণ মজুমদার, ক্লাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট শান্তিরঞ্জন দাসগুপ্ত, অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট সুব্রত দত্ত, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সহসভাপতি ইমরুল হাসানসহ বিশিষ্টজনের।  

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরার ইস্টওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপের গণমাধ্যমগুলোর ঊর্ধ্বতনরা।  

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৩ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২১
ভিএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa