ঢাকা, সোমবার, ৫ আশ্বিন ১৪২৮, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১ সফর ১৪৪৩

খেলা

বার্সা ছাড়ছেন মেসি

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০১৮ ঘণ্টা, আগস্ট ৬, ২০২১
বার্সা ছাড়ছেন মেসি

বার্সেলোনার জার্সিতে আর খেলতে দেখা যাবে না লিওনেল মেসিকে। অনেক কাঠখড় পুড়িয়েও কাতালান জায়ান্টদের পক্ষে তার সঙ্গে নতুন চুক্তি স্বাক্ষর সম্ভব হলো না।

ছুটি কাটিয়ে ফিরেই এই আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড চুক্তি নিয়ে সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন। এরপরই এলো দুঃসংবাদ। বার্সেলোনায় মেসি যুগের অবসান ঘটলো।

বৃহস্পতিবার দিনগত রাতে স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যমগুলো এমন খবর দিয়েছে। পরে বার্সেলোনার পক্ষ থেকেও সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। ফলে ১৭ বছর পর ক্যাম্প ন্যু থেকে বিদায় নিচ্ছেন মেসি।

বার্সা এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, দুই পক্ষ আর্থিক বিষয় এবং চুক্তি নবায়নের ব্যাপারে একমত হয়েছিল। কিন্তু লা লিগার আরোপিত অর্থনৈতিক ও কাঠামোগত প্রতিবন্ধকতায় দুই পক্ষের মধ্যে নতুন চুক্তি হচ্ছে না।

আপাতত মেসি ফ্রি এজেন্ট হিসেবে নতুন ক্লাবের খোঁজ নিতে নিতে শুরু করবেন।  

এর আগে স্প্যানিশ মিডিয়াগুলো জানিয়েছিল, বার্সার সঙ্গে ৫ বছরের নতুন চুক্তি স্বাক্ষর করতে পারেন মেসি। কিন্তু সেই তথ্য ভুল প্রমাণিত হলো। অথচ নতুন চুক্তি করার জন্য তিনি নিজে বেতন অর্ধেক নিতে রাজি হয়েছিলেন। এমনকি সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছিল লা লিগা কর্তৃপক্ষও।

সম্প্রতি আমেরিকার সিভিসি ক্যাপিটাল পার্টনারদের কাছ থেকে ২.৭ বিলিয়ন ইউরো ঋণ সহায়তা পেয়েছে লা লিগা। করোনা ভাইরাস মহামারির কারণে আর্থিক ক্ষতি উঠতে এই সহায়তা আসে। এর মধ্যে ৭০ শতাংশ ব্যয় হবে ক্লাবগুলোর অবকাঠামোর পেছনে। ১৫ শতাংশ ঋণ পরিশোধ এবং বাকি ১৫ শতাংশ খেলোয়াড়দের পেছনে ব্যয় করা হবে। মোট ঋণ থেকে বার্সা পাচ্ছে ২৮০ মিলিয়ন ইউরো। এর মধ্যে ৪২ মিলিয়ন ইউরো তারা ট্রান্সফার ও বেতনের পেছনে খরচ করতে পারবে। ফলে মেসিকে ধরে রাখার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল।  

কিন্তু লা লিগার শর্ত অনুযায়ী ক্লাবগুলোকে আয়ের ওপর নির্ভর করে খেলোয়াড়দের বেতনের অঙ্ক বেঁধে দেওয়া হয়েছিল। বার্সার জন্য সংখ্যাটা ২০০ মিলিয়নের মতো। কিন্তু বেতন বাবদ বার্সার খরচ আরও অনেক বেশি। ফলে খেলোয়াড়দের বেতন কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বার্সার বোর্ড। মেসি নিজেও অর্ধেক বেতনেই রাজী ছিলেন। কিন্তু জেরার্ড পিকে, সার্জিও বুসকেতস, জর্দি আলবা, মার্ক আন্দ্রে টের স্টেগেন, আর সার্জি রবার্তো ছাড়া আর কেউ বেতন কমাতে রাজি হননি।

মাত্র ১৩ বছর বয়সে ক্যাম্প ন্যুয়ে পা রেখেছিলেন মেসি। ৩ বছর লা ম্যাসিয়ায় খেলার পর ২০০৩ সালে মাত্র ১৬ বছর বয়সে সিনিয়র দলে অভিষেক হয় তার। কাতালান জায়ান্টদের জার্সিতে ১০টি লা লিগা ও ৪টি চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা জিতেছেন তিনি। এছাড়া বার্সার জার্সিতে অসংখ্য শিরোপা ও অর্জন জমা আছে তার কীর্তির খাতায়। হয়েছেন বার্সার জার্সিতে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ ও গোলের মালিক। সবমিলিয়ে তিনি বার্সার ইতিহাসের সবচেয়ে সফল খেলোয়াড় হিসেবে স্বীকৃত। কিন্তু দুঃখজনক বিষয় হলো, ছয়বারের ব্যালন ডি'অরজয়ীকে আর এই ক্লাবের জার্সিতে দেখা যাবে না।

বাংলাদেশ সময়: ০০১৮ ঘণ্টা, আগস্ট ০৬, ২০২১
এমএইচএম/জেআইএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa