bangla news

করোনাযুদ্ধে অংশ নিতে সব ট্রফি বিক্রি করলেন এই গলফার

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৪-০৮ ১:৩৩:৩১ পিএম
গলফার অর্জুন ভাটি/ছবি: সংগৃহীত

গলফার অর্জুন ভাটি/ছবি: সংগৃহীত

মহামারি করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে ২১ দিনের জন্য লকডাউন করা হয়েছে পুরো ভারত। এই সময় সবচেয়ে বেশি অসুবিধায় পড়েছেন দুস্থ ও অসহায় মানুষজন। তাদের সাহায্যার্থে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিচ্ছেন অনেকেই। বাদ যাননি দেশটির ক্রীড়া তারকারাও। কিন্তু তরুণ এক গলফার যা করলেন তা যেকোনো ক্রীড়াবিদের জন্যই সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকার।

করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য এরই মধ্যে শচীন টেন্ডুলকার, সুনীল গাভাস্কার, বিরাট কোহলি, সৌরভ গাঙ্গুলী, রোহিত শর্মা, যুবরাজ সিংদের মতো সাবেক ও বর্তমান ক্রিকেট সুপারস্টাররা বড় অংকের আর্থিক অনুদান দিয়েছেন। এই তালিকায় আছেন টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা এবং কিংবদন্তি বক্সার ম্যারি কমের মতো তারকারাও।

দেশের দুস্থ মানুষদের কঠিন সময়ে অন্যান্য ক্রীড়া তারকাদের মতোই সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিতে চেয়েছিলেন তরুণ গলফার অর্জুন ভাটি। কিন্তু মাত্র ১৫ বছর বয়সী এই গলফারের আর্থিক সামর্থ্য তেমন আহামরি নয়। কিন্তু চুপ করে বসে থাকার পাত্রও নন তিনি। উপায় একটা বের করে ফেললেন। এযাবৎ যত ট্রফি জিতেছেন সবগুলোই বিক্রি করে দিলেন তিনি। ভাবা যায়!

গত ৮ বছরে ১০২টি শিরোপা জিতেছেন অর্জুন। এর মধ্যে ৩টি ওয়ার্ল্ড গলফ চ্যাম্পিয়নশিপ ও ন্যাশনাল চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপাও আছে। ক্যারিয়ারের অর্জন এতসব ট্রফি ড্রয়িং রুমে সাজানো ছিল। কিন্তু এগুলোর সেরা ব্যবহার নিশ্চিত করতে তিনি সবগুলোই নিজের আত্মীয়স্বজন এবং নিজের বাবা-মা'র বন্ধুদের কাছে বিক্রি করেছেন, যা থেকে তিনি মোট ৪ লাখ ৩০ হাজার রুপি সংগ্রহ করেছেন। এই অর্থের পুরোটাই তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর রিলিফ ফান্ডে দান করে দিয়েছেন।

সর্বশেষ প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, ভারতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার ৩৬০ এবং মৃতের সংখ্যা ১৬৪। আর পুরো বিশ্বে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ১৪ লাখ ৩৩ হাজার ২৫ এবং মৃতের সংখ্যা ৮২ হাজার ১৩৬।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৩৩ ঘণ্টা, এপ্রিল ০৮, ২০২০
এমএইচএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   খেলা করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-04-08 13:33:31