bangla news

কোয়ারেন্টিন না মানার দাবিকে উড়িয়ে দিলেন নেইমার

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৩-৩০ ৪:৩০:২৩ পিএম
চার বন্ধু ও নিজ সন্তানের সঙ্গে বিচ ভলিবল খেলার ফাঁকে নেইমার/ ছবি: সংগৃহীত

চার বন্ধু ও নিজ সন্তানের সঙ্গে বিচ ভলিবল খেলার ফাঁকে নেইমার/ ছবি: সংগৃহীত

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে ইউরোপে সবধরনের ফুটবল স্থগিত করা হয়েছে। অধিকাংশ খেলোয়াড় এসময় স্বেচ্ছায় ঘরবন্দী অবস্থায় আছেন। তবে পিএসজির ফরোয়ার্ড নেইমার জুনিয়র ক্লাবের অনুমতি নিয়েই নিজ দেশ ব্রাজিলে ফিরে গিয়েছেন। কিন্তু সেখানে গিয়েও বিতর্ক পিছু ছাড়েনি তার।

ব্রাজিলের ফিরে গিয়ে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার কথা ছিল নেইমারের। সম্প্রতি ব্রাজিলের একাধিক সংবাদমাধ্যমের দাবি, কিছুদিন আগেই তাকে একটি সুপারশপে দেখা গেছে। এরপর বন্ধুদের সঙ্গে বিচ ভলিবল খেলার একটি ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করার পর বিতর্কে নতুন মাত্রা যোগ হয়।

নেইমারের সঙ্গে বিচ ভলিবল খেলায় যোগ দেন তার চার বন্ধু এবং আট বছর বয়সী সন্তান দাভি লুক্কা। তাদের এই খেলার ছবি সামনে আসতেই বিতর্ক শুরু হয়। অথচ করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে পুরো ব্রাজিলে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশনা দিয়েছে ব্রাজিলের প্রশাসন। ফলে করোনা ভাইরাসকে গুরুত্ব না দিয়ে সামাজিক দূরত্বের নিয়ম মানছেন না, এমন অভিযোগ ওঠে নেইমারের বিরুদ্ধে।

২৮ বছর বয়সী তারকা ফুটবলার রিও ডি জেনেরিও'তে অবস্থিত তার বিলাসবহুল বাড়িতে সময় কাটানোর জন্য চলতি মাসের শুরুর দিকে ফ্রান্স থেকে দেশে ফিরে আসেন। কিন্তু ফেরার পর থেকেই বিতর্ক পিছু ছাড়ছে না তার। তবে কোয়ারেন্টিন ভেঙে নিজ দেশে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়লেও সমালোচকদের একহাত নিয়েছেন ব্রাজিলিয়ান ফুটবল সুপারস্টার।

নেইমারের মুখপাত্র সমালোচনার জবাবে বলেন, 'নেইমারের ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করা যে ছবিটি নিয়ে এত আলোচনা-সমালোচনা সেই ছবিতে যাদের দেখা গেছে তারা সবাই প্যারিসে একসঙ্গে থাকেন এবং একসঙ্গে ব্রাজিলে ফিরে তার সঙ্গে কোয়ারেন্টিনে আছেন। তাদেরকে নিজ নিজ পরিবারের কাছে ফিরে যাওয়ার আগে নেইমার তার নিজের বাড়িতে ১৪ দিনের জন্য কোয়ারেন্টিনে থাকতে বলছেন।'

'যে বাড়িতে নেইমার কোয়ারেন্টিনে আছেন সেটি পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন এবং শান্তিময়, যাতে তিনি সেখানে নিশ্চিন্তে অনুশীলন চালিয়ে যেতে পারেন এবং এই কঠিন এবং দুঃসহ সময়ে ভালোবাসার মানুষগুলোকে দেখভাল করতে পারেন। ওই বাড়িতে কোনো মিটিং কিংবা বাইরের কেউ যেতে পারে না। কারণ সেখানে শুধুই বাড়ির বাসিন্দারা যেতে পারেন।'

শুধু একজনের জন্যই নিয়ম শিথিল করা হয়েছে। আর সে হলো নেইমারের সন্তান দাভি লুক্কা। সে তার মা, সৎ বাবা এবং তার ভাইয়ের সঙ্গে প্যারিসে থাকে। বাবার সঙ্গে দেখা করতেই শুধু এখানে এসেছে। তবে এই সময় নেইমার পরিবারের অন্যান্য সদস্য যেমন তার মা, বোন এবং দাদির কাছ থেকে দূরে আছেন। কারণ তিনি জানেন এই দূরত্ব বজায় রাখা সবার জন্যই ভালো হবে। তবে এই সময়েও নিজেকে ফিট রাখতে অনুশীলন চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি।'

নেইমারের ৬ মিলিয়ন পাউন্ড মূল্যের ওই বাড়িতেই অনুশীলনের সব ব্যবস্থা আছে। শুধু তাই না, ওই বাড়িতে হেলিপ্যাড, জিম, টেনিস কোর্ট, সুইমিং পুল এবং জেটি আছে।

ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৪ হাজার। আর মৃতের সংখ্যা ১১১। এদিকে বিশব্যাপী করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৭ লাখ ২৫ হাজার ২৪০ এবং মৃতের সংখ্যা ৩৪ হাজার ৩৫।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৯ ঘণ্টা, মার্চ ৩০, ২০২০
এমএইচএম/এমএমএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   নেইমার ফুটবল করোনা ভাইরাস
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-03-30 16:30:23