bangla news

বঙ্গবন্ধু জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে মেহেরপুরকে হারালো চুয়াডাঙ্গা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-১৮ ৬:৫২:১১ পিএম
ছবি: বাংলানিউজ

ছবি: বাংলানিউজ

চুয়াডাঙ্গা: চুয়াডাঙ্গায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপ-২০২০ এর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়েছে। শনিবার (১৮ জানুয়ারি) বিকেলে নবনির্মিত জেলা স্টেডিয়ামে চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সাংসদ সোলাইমান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন আনুষ্ঠানিকভাবে এই টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করেন। 

এ সময় জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার, পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিয়াজুল ইসলাম জোয়ার্দ্দার টোটন, স্বাধীন বাংলা ফুটবল দলের খেলোয়াড় আব্দুল মোমেন জোয়ার্দ্দার, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক নঈম হাসান জোয়ার্দ্দার ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি রফিকুল হাসান লাড্ডু উপস্থিত ছিলেন। 

টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হয় চুয়াডাঙ্গা জেলা একাদশ ও মেহেরপুর একাদশ। প্রথমার্ধে দুই দলের আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে প্রাণবন্ত হয়ে ওঠে খেলা। গ্যালারিতে বসে থাকা দর্শকরা দারুণ এক উত্তেজনাকর ম্যাচ উপভোগ করে। তবে প্রথমার্ধে মেহেরপুরের খেলোয়াড়রা বেশ কয়েকটি সহজ গোলের সুযোগ হাতছাড়া করে। 

প্রথমার্ধের খেলা গোলশূন্যভাবে শেষ হলেও বিরতির পর ৬৩ মিনিটের মাথায় মেহেরপুরের আক্রমণে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার বিপ্পার গায়ে লেগে বল চুয়াডাঙ্গার জালে জড়িয়ে যায়। আত্মঘাতি গোলে মেহেরপুর এগিয়ে যায় ১-০ ব্যবধানে। 

এরপর গোল শোধে মরিয়া হয়ে ওঠে চুয়াডাঙ্গা। গোল হজমের মাত্র ৪ মিনিটের মাথায় চুয়াডাঙ্গার ইব্রাহিমকে ডি-বক্সের ভেতর ফাউল করলে রেফারি সুজিত ব্যানার্জি চন্দন পেনাল্টির বাঁশি বাজান। পেনাল্টির সুযোগ কাজে লাগিয়ে চুয়াডাঙ্গার তরু ১-১ গোলে দলকে সমতায় ফেরান। এরপর দুই দলই গোল করতে আক্রমণ পাল্টা আক্রামণে মরিয়া হয়ে ওঠে। 

৭৭ মিনিটে চুয়াডাঙ্গার শামীম মেহেরপুরের গোলরক্ষক সবুর আলীকে বোকা বানিয়ে বল জালে জড়িয়ে দেন। পরের ১৫ মিনিটে সমতায় ফিরতে দফায় দফায় আক্রামণ চালালেও ব্যর্থ হয় মেহেরপুর। রেফারির শেষ বাঁশিতে চুয়াডাঙ্গা একাদশ ২-১ গোলের বিজয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে। 

খেলায় সহকারী রেফারির দায়িত্বে ছিলেন উথাইয়া চিং ও মাসুদ রহমান। ম্যাচ রেফারি ছিলেন শহিদুল ইসলাম বাচ্চু। 

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারী ১৮, ২০২০
জেএ/ইউবি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ফুটবল
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-01-18 18:52:11