bangla news

সেঞ্চুরিতে বিশ্ব রেকর্ড হৃদয়ের

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১৯ ৩:৪৬:০৭ পিএম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

সফরকারী শ্রীলঙ্কা অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের শেষটিতে খেলছে স্বাগতিক বাংলাদেশ। আগে ব্যাটিংয়ে নামা বাংলাদেশ ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে তুলেছে ২৮৩ রান। চার নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে সেঞ্চুরি করেছেন তৌহিদ হৃদয়।

আর এই সেঞ্চুরির মধ্যদিয়ে বিশ্ব রেকর্ডে নাম লিখিয়েছেন হৃদয়। অনূর্ধ্ব-১৯ ওয়ানডে ক্রিকেটে আর কোনো ব্যাটসম্যান টানা তিনটি সেঞ্চুরির দেখা পাননি। লঙ্কানদের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয়, চতুর্থ আর পঞ্চম ম্যাচে সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে হৃদয় এখন বিশ্ব রেকর্ডের মালিক।

এর আগে ২০০৪ সালে বাংলাদেশ সফরে এসে ইংল্যান্ডের স্যার অ্যালিস্টার কুক টানা দুটি সেঞ্চুরি করেছিলেন। সেটিই ছিল টানা দুই ইনিংসে দুই সেঞ্চুরির প্রথম কীর্তি। এরপর ভারতের গৌরব ধিমান, উন্মুখ চাঁদ, শুভমন গিল, পাকিস্তানের সামি আসলাম, দক্ষিণ আফ্রিকার আইডেন মার্কারাম, জ্যাকসন বার্ড, শ্রীলঙ্কার আভিস্কা ফার্নান্দো টানা দুই ইনিংসে দুটি করে সেঞ্চুরি করেছিলেন। ২০১৪ সালে না ফেরার দেশে চলে যাওয়া অস্ট্রেলিয়ার ওপেনার ফিল হিউজ ২০০৭ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে টানা দুই ইনিংসে দুই সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিলেন।

বাংলাদেশের মাহমুদুল হাসান জয় আর তৌহিদ হৃদয় টানা দুই ম্যাচে দুই সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে তাদের সঙ্গী হয়েছিলেন। কদিন আগে মাহমুদুল জয় ভারত ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে করেছিলেন ১০৯ ও ১২৬ রান। চলতি সিরিজে লঙ্কানদের বিপক্ষে হৃদয়ের টানা তিনটি সেঞ্চুরির ইনিংস ১২৩*, ১১৫ এবং ১১১।

খুলনায় প্রথম ম্যাচটি পরিত্যক্ত হলে গত ১১ নভেম্বর দ্বিতীয় ম্যাচটি মাঠে গড়ায়। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে খুলনায় হৃদয় করেন অপরাজিত ৮২ রান। বাংলাদেশ সেই ম্যাচটি জিতেছিল ৫ উইকেটে। সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে চট্টগ্রামে করেন অপরাজিত ১২৩ রান। সেই ম্যাচটি বাংলাদেশ জিতেছিল ১৬১ রানের বিশাল ব্যবধানে। সিরিজের চতুর্থ ম্যাচে হৃদয় করেন ১১৫ রান। সেই ম্যাচটি বাংলাদেশ জিতেছিল ৫ উইকেটে। আজ হৃদয় ১০২ বলে তিনটি চার আর পাঁচটি ছক্কায় করেন ১১১ রান।

পাকিস্তানের সামি আসলাম আর ভারতের শুভমন গিল কোনো এক প্রতিপক্ষের বিপক্ষে সর্বোচ্চ তিনটি করে সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছিলেন। সামি ভারতের বিপক্ষে আর গিল ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তিনটি করে সেঞ্চুরির দেখা পান। লঙ্কানদের বিপক্ষে টানা তিন ম্যাচে সেঞ্চুরি করে তৌহিদ হৃদয় তাদের পাশে বসলেন।

এক সিরিজে সর্বোচ্চ তিনটি সেঞ্চুরি ছিল ইংল্যান্ডের বার্নহাম (৬ ম্যাচ), ভারতের ধিমান (৬ ম্যাচ) আর শিখর ধাওয়ানের (৭ ম্যাচ) দখলে। আজ সেঞ্চুরির মধ্যদিয়ে হৃদয় তাদের পাশে বসলেন। আগের তিনজনের চেয়ে কম ম্যাচ খেলে এই কীর্তিতে নাম লেখালেন হৃদয়।

অনূর্ধ্ব-১৯ ওয়ানডে ক্রিকেটে সর্বোচ্চ সেঞ্চুরির মালিক পাকিস্তানের সামি আসলাম। তিনি করেছেন ৬টি সেঞ্চুরি। ৫টি সেঞ্চুরি আছে উন্মুখ চাঁদের। ভারতীয় এই ব্যাটসম্যানদের সঙ্গে যৌথভাবে দুইয়ে নাম লেখালেন হৃদয়। চারটি করে সেঞ্চুরি করেছিলেন শুভমন গিল, ক্যামেরুন ব্যানক্রফট, কুইন্টন ডি কক, আভিস্কা ফার্নান্দোরা।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪২ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৯, ২০১৯
এমআরপি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-19 15:46:07