bangla news

‘৭০ শতাংশ’ জেতার অবস্থায় আছে আফগানিস্তান

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-০৭ ৭:৪১:৫৪ পিএম
দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন ইব্রাহীম জাদরান/ছবি: সংগৃহীত

দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন ইব্রাহীম জাদরান/ছবি: সংগৃহীত

খেলার মাত্র তৃতীয় দিন শেষ হয়েছে। কিন্তু এরইমধ্যে আফগানদের লিড ৩৭৪ রানের। চতুর্থ দিনে ৪০০ বা তার বেশি লিডের সম্ভাবনা আছে। সবমিলিয়ে এই ম্যাচে আফগানদের জেতাই হবে স্বাভাবিক ঘটনা। যদিও আবহাওয়া এক্ষেত্রে বড় ভূমিকা রাখতে পারে। তবে এখন পর্যন্ত যে অবস্থা, তাতে ম্যাচ জেতার পথে নিজেদের ‘৭০ শতাংশ’ এগিয়ে রাখছে আফগানিস্তান।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শনিবার (৭ সেপ্টেম্বর) সকালেই বাংলাদেশের বাকি ২ উইকেট তুলে নিয়ে ২০৫ রানে থামিয়ে দিয়েছে আফগানিস্তান। এরপর অভিষিক্ত ওপেনার ইব্রাহীম জাদরানের ৮৭ রানের দুর্দান্ত ইনিংসে ভর করে দিন শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৩৭ রান তুলেছে সফরকারীরা। এখন পর্যন্ত লিড ৩৭৪ রানের।

চতুর্থ দিনে লিডটাকে চারশ পার করতে চায় আফগানিস্তান। তবে একটা আশঙ্কা তৈরি হয়েছে আবহাওয়া নিয়ে। চট্টগ্রামের আবহাওয়া পূর্বাভাসে বৃষ্টির বার্তা দিচ্ছে। তবে এসব শঙ্কা আপাতত এক পাশে সরিয়ে রেখে জেতার দিকের সব নজর আফগানদের। 

দিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে হাজির হয়ে ইব্রাহীম জানালেন, ‘আগামী দুদিনের আবহাওয়া কেমন হবে জানি না। কিন্তু যেভাবে মাঝে মাঝে রোদ আবার মাঝে মাঝে মেঘ থাকছে, তাতে একটা কিন্তু রয়েই যাচ্ছে। তবে আমরা আশা করি, আরও ১০-১৫ ওভার ব্যাট করতে পারলে আর ৩০-৪০ রান যোগ করতে পারলে লক্ষ্যটা চারশো ছাড়িয়ে যাবে। তখন বাংলাদেশের জন্য কাজটা কঠিন হয়ে যাবে।’

হাতে এখনও দু’দিন আছে। তাছাড়া নিজেদের প্রথম ইনিংসে মাত্র ২০৫ রানেই গুটিয়ে যাওয়ায় বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের দুর্বলতাও প্রকাশ পেয়েছে। ফলে বাংলাদেশকে হারানোর বড় সম্ভাবনাই দেখছেন ইব্রাহীম, ‘আশা করছি ওদের প্রথম ইনিংসে যেভাবে অলআউট করেছিলেম আবারও তা করতে পারব। আমাদের বিশ্বাস, আমরা এই ম্যাচে ৭০ শতাংশ জেতার অবস্থায় আছি।’

প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান মাত্র তৃতীয় টেস্ট খেলতে নেমেছে। অন্যদিকে বাংলাদেশ খেলছে ১১৫তম টেস্ট। কিন্তু মাঠের খেলায় আফগানদের দাপুটে পারফরম্যান্স দেখে তা বোঝার উপায় নেই। এই সাফল্যের রহস্য সম্পর্কে ইব্রাহীমের উত্তর, ‘আমরা খুব ভালো প্রস্তুতি নিয়ে এসেছি। ফলে এখানে ভালো খেলার ব্যাপারে আমরা আশাবাদী ছিলাম।’

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৭, ২০১৯
এমএইচএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   পুলিশ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-07 19:41:54