ঢাকা, বুধবার, ১১ বৈশাখ ১৪২৬, ২৪ এপ্রিল ২০১৯
bangla news

মেসিবিহীন বার্সাকে রুখে দিল উয়েস্কা

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৪-১৩ ১১:৪৬:৩৯ পিএম
বার্সা

বার্সা

লিগ টেবিলের একদম শেষে থাকা উয়েস্কার মাঠে এবারই প্রথমবারের মতো খেলতে গিয়েছিল বার্সেলোনা। এর আগে ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যুয়ে গত বছরের সেপ্টেম্বরে এই দলটিকেই ৮-২ গোলে উড়িয়ে কাতালান জায়ান্টরা।

তুলনামূলক দুর্বল দলের সঙ্গে খেলা বলেই মেসি-সুয়ারেজসহ দলের বড় কয়েকজন তারকাকে বিশ্রাম দিয়েছিলেন বার্সা কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দে। কিন্তু তাতে ফল হলো উল্টো। উয়েস্কার মাঠ এস্তাদিয়ো এল আলকোরাজ থেকে গোলশূন্য ড্র নিয়ে ফিরতে হলো বার্সাকে।

শনিবার (১৩ এপ্রিল) লা লিগার ম্যাচটিতে মাঠে নামেননি দলের মূল চার তারকা তথা ফরোয়ার্ড লিওনেল মেসি ও স্ট্রাইকার লুইস সুয়ারেজ, মিডফিল্ডার ইভান রাকিতিচ ও সেন্টার-ব্যাক জেরার্ড পিকে। ফলে একাদশে প্রথমবারের মতো সুযোগ পেয়েছিলেন চার খেলোয়াড়। কিন্তু মূল তারকাদের অভাব বেশ ভুগিয়েছে লিগের শীর্ষে থাকা দলটিকে। যদিও বরাবরের মতোই বল দখল, পাসিং সব বিষয়েই যোজন যোজন ব্যবধানে এগিয়ে ছিল। কিন্তু কাঙ্ক্ষিত গোলের দেখাটাই পায়নি।

ম্যাচের প্রথমার্ধের ১৬তম মিনিটে দারুণ এক সুযোগ পেয়েছিলেন উসমানে দেম্বেলে। কিন্তু মাত্র ৬ গজ দূরে থেকে নেওয়া তার শট পা দিয়ে ঠেকিয়ে দেন উয়েস্কার গোলরক্ষক সান্তামারিয়া। পরের মিনিটেই ফের দারুণ এক সেভ করেন তিনি। এবার বার্সার কলম্বিয়ান ডিফেন্ডার জেইসন মুরিয়োর হেড জাল খুঁজে নেওয়ার ঠিক আগ মুহূর্তে আঙুলের ছোঁয়ায় বল ক্রসবারের উপর দিয়ে পার করে দেন সান্তামারিয়া।

দ্বিতীয়ার্ধে বার্সার ব্যর্থতার সুযোগে গোলমুখে আক্রমণ শানায় উয়েস্কা। ৫২তম মিনিটে তারা পুরো ম্যাচে তাদের একমাত্র গোলস্কোরিং সুযোগ পেয়ে যায়। কিন্তু ডি-বক্সের মধ্যে থেকে গায়েগোর নেওয়া আগুনে শট ঠেকিয়ে দেন বার্সা গোলরক্ষক মার্ক আন্দ্রে টের স্টেগান।

৫৭তম মিনিটে গোলের দেখা পাওয়ার কাছাকাছি চলে গিয়েছিল বার্সা। ম্যালকমের শট পোস্টে লেগে ডি-বক্সে ফিরে আসে। কোনোমতে ভাগ্যক্রমে বেঁচে যায় স্বাগতিকরা।

ম্যাচের বাকি সময়টা শুধুই বল কাড়াকাড়ির গল্প। ৭৫ শতাংশ বল দখলে রেখেও বার্সা গোলমুখে শট নিতে পেরেছে মাত্র ২টি আর উয়েস্কা ১টি।

এই নিয়ে চলতি মৌসুমে ৮ম ড্র’র মুখ দেখা বার্সার সংগ্রহ ৩২ ম্যাচে ৭৪ পয়েন্ট।  

বাংলাদেশ সময়: ২৩৪৫ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৩, ২০১৯
এমএইচএম

 

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14