ঢাকা, শনিবার, ৬ বৈশাখ ১৪২৬, ২০ এপ্রিল ২০১৯
bangla news

গেইলের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে পাঞ্জাবের জয়

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-২৬ ১:২০:১৮ এএম
ম্যাচ শেষে হেসেছে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবই

ম্যাচ শেষে হেসেছে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবই

ক্রিস গেইলের ঝড়ো ব্যাটে ভর করে রাজস্থান রয়্যালসকে ১৪ রানে হারিয়ে আইপিএলের এবারের আসরে শুভ সূচনা করেছে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। গেইলের পাশাপাশি পাঞ্জাবের এ জয়ে অবদান ছিল দলের নিয়ন্ত্রিত বোলিংও।

সোমবার (২৫ মার্চ) জয়পুরে দিনের একমাত্র ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৮৪ রান করে পাঞ্জাব। জবাবে ব্যাট করতে নেমে পুরো ওভার খেললেও ৯ উইকেট হারিয়ে ১৭০ রানের বেশি করতে পারেনি রাজস্থান।                           

১৮৫ রানের টার্গেটে ব্যাটিং করতে নেমে রাজস্থানের দুই ওপেনার আজিঙ্কা রাহানে ও জস বাটলার দারুণ শুরু এনে দেন। ৮.১ ওভারে তারা ৭৮ রান তোলেন। তবে ২০ বলে ২৭ রান করে রবিচন্দ্রন অশ্বিনের বলে বোল্ড হন রাহানে। 

বাটলার অবশ্য নিজের ইনিংস বড় করে দলকে জয়ের দিকেই নিচ্ছিলেন। ৪৩ বলে ১০টি চার ও ২টি ছক্কায় ৬৯ রান করে রান আউট হন। তাকে ‘মানকড়’র মতো বিতর্কিত রান আউট করেন অশ্বিন।

সঞ্জু স্যামসন ৩০ ও স্টিভেন স্মিথ ২০ রান করলেও শেষের দিকের ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় জয়ের খুব কছে গিয়েও হার মানে রাজস্থান। 

পাঞ্জাব বোলারদের মধ্যে স্যাম কুরান, মুজিব উর রহমান ও আনকিত রাজপুত দু’টি করে উইকেট পান। অধিনায়ক অশ্বিন একটি উইকেট দখল করেন।              

এর আগে টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করতে  নেমে শুরুতেই লোকেশ রাহুলের উইকেট হারায় পাঞ্জাব। তবে একপাশ আগলে রেখে ব্যাট করতে থাকেন গেইল। মায়ানক আগারওয়াল ও সরফরাজ খানের সঙ্গে দু’টি জুটি গড়ে দলীয় ইনিংস বড় করেন। 

শেষ পর্যন্ত বেন স্টোকসের বলে আউট হওয়ার আগে ৭৯ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন ক্যারিবিয়ান তারকা গেইল। ইনিংস সাজাতে ৪৭ বলে ৮টি চার ও ৪টি ছক্কা হাঁকান তিনি। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৯ বলে ৪৬ রান করেন সরফরাজ। 

 রাজস্থানের বোলারদের মধ্যে সর্বোচ্চ দু’টি উইকেট নেন স্টোকস। এছাড়া একটি করে উইকেট পান ধাওয়াল কুলকার্নি ও ক্রিশনাপ্পা গৌতম। 

বাংলাদেশ সময়: ০১১৩ ঘণ্টা, মার্চ ২৬, ২০১৯
এমএমএস/এইচএ/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14