ঢাকা, শনিবার, ৭ বৈশাখ ১৪২৬, ২০ এপ্রিল ২০১৯
bangla news

নিউজিল্যান্ডে মুসলিমদের নেতৃত্বে এক রাগবি তারকা

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-২২ ১০:৩৩:১১ পিএম
স্থানীয়েদর সঙ্গে রাগবি তারকা সনি বিল উইলিয়ামস

স্থানীয়েদর সঙ্গে রাগবি তারকা সনি বিল উইলিয়ামস

নিউজিল্যান্ডের সবচেয়ে জনপ্রিয় মুসলিম মুখ বলা হয় তাকে। দেশটির ক্রীড়া জগতেও তার প্রভাব অনেক। বলছি দেশটির সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা রাগবির তারকা সনি বিল উইলিয়ামসের কথা। অন্য সবার মতো ক্রাইস্টচার্চ হামলায় তিনিও কষ্ট পেয়েছেন। এমনকি হারিয়েছেন এক কাছের বন্ধুকেও। সেই তিনিই মুসলিমদের বিশাল জমায়েতে হাজির হয়ে নেতার ভূমিকায় হাজির হলেন।

ক্রাইস্টচার্চের দুই মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার পর পুরো নিউজিল্যান্ড যেন এক কাতারে দাঁড়িয়ে গেছে। ১৫ মার্চ এক শ্বেতাঙ্গ শ্রেষ্ঠত্ববাদীর হামলায় ৫০ জন মুসল্লি নিহত হওয়ার ঘটনার প্রতিবাদ ও মুসলিম সমাজের পাশে দাঁড়ানোর অভিপ্রায় নিয়ে আজ শুক্রবার (২২ মার্চ) হ্যাগলি পার্কে জড়ো হন প্রায় ২০ হাজার মানুষ। সেখানে সবার সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করতে হাজির হন কিংবদন্তি সনি বিল উইলিয়ামস। সবার সঙ্গে জুমার নামাজও আদায় করেন তিনি।

নামাজ শেষে সবার সঙ্গে সময় কাটানোর পাশপাশি সংবাদ মধ্যমেরও মুখোমুখি হন তিনি। নিউজিল্যান্ডার হওয়ার পাশাপাশি সাংবাদিকদের সামনে নিজের মুসলিম পরিচয় নিয়েও গর্বের সঙ্গে কথা বলেন তিনি। তার মতো মহাতারকার সান্নিধ্য পেয়ে উৎফুল্ল হয়ে উঠেন সেখানে উপস্থিত সবাই।

নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাচিন্ডা আরডের্নের ভূয়সী প্রশংসা করতেও দেখা যায় বিল উইলিয়ামসকে। যেভাবে প্রধানমন্ত্রী মুসলিমদের পাশে দাঁড়িয়েছেন তা যে সবার মন জয় করেছে সে কথাও বলেন তিনি। এবং তিনি দেশটির মুসলিম ভাই-বোনদের নেতৃত্ব দিতে চান বলেও ঘোষণা দেন।
স্থানীয়েদর সঙ্গে রাগবি তারকা সনি বিল উইলিয়ামস
উইলিয়ামস আরও বলেন, ‘ইসলাম কী মানুষ আসলেই জানে না। এই জ্ঞানের আলো পাওয়ার পর আমি বুঝতে পেরেছি, যা ইসলামকে বুঝতে সবারই দরকার। এই ধর্ম সত্যি শান্তি ও ভালোবাসার।‘

২০০৯ সালে ফ্রান্সে থাকার সময় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন উইলিয়ামস। কিউইদের হয়ে রাগবি দলে খেলা একমাত্র মুসলিমও তিনি। সন্ত্রাসী হামলায় তার এক বন্ধু নিহত হন। ক্যান্টারবুরি রাগবি দলের হয়ে খেলার সময় এই মসজিদেই নিয়মিত নামাজ আদায় করতেন সনি নিজেও। হামলায় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় গঠিত তহবিলে ২ লাখ ডলার তুলে দেন তিনি।

গত ১৫ মার্চ ক্রাইস্টচার্চে সন্ত্রাসীর বন্দুক হামলায় ৫০ জন মুসল্লি নিহত হন। এই হামলার দায়ে ব্রেন্টন ট্যারেন্ট নামের এক অস্ট্রেলীয় ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে আদালতে হাজির করেছে দেশটির পুলিশ। এই হামলা থেকে অল্পের জন্য বেঁচে যান বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা।

বাংলাদেশ সময়: ২২২৫ ঘণ্টা, মার্চ ২২, ২০১৯
এমএইচএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ক্রাইস্টচার্চ মসজিদ হামলা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14