ঢাকা, বুধবার, ১২ আষাঢ় ১৪২৬, ২৬ জুন ২০১৯
bangla news

শিরোপার দৌড়ে নাপোলিকে আরও পেছনে ফেললো জুভেন্টাস

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-০৪ ৪:১৬:৪৫ এএম
নাপোলির বিপক্ষে গোলের পর উদযাপন জুভেন্টাসের। ছবি: সংগৃহীত

নাপোলির বিপক্ষে গোলের পর উদযাপন জুভেন্টাসের। ছবি: সংগৃহীত

ইতালিয়ান লিগ সিরি-আ’তে শুরু থেকেই দুর্দান্ত ছন্দে রয়েছে জুভেন্টাস। এবার মৌসুমের ২৫টি ম্যাচ খেলে এখন পর্যন্ত পরাজয়ের স্বাদ পেতে হয়নি ইতালিয়ান জায়ান্টদের। দ্বিতীয় স্থানে থাকা নাপোলির চেয়ে ১৩ পয়েন্ট এগিয়ে। তাই লিগ শিরোপা জয়ের দৌড়েও অনেকখানিই এগিয়ে তারা। পয়েন্ট ব্যবধানটা বাড়াতে তাই রোববার (৩ মার্চ) রাতে নাপোলির মুখোমুখি হয় জুভেন্টাস।

এস্তাদিও সান পাওলোতে ম্যাচের শুরু থেকেই নাপোলির ওপর আধিপত্য দেখায় জুভেন্টাস। ২৬ মিনিটে নাপোলির গোলরক্ষক অ্যালেক্স মেরেট ডি-বক্সের বাইরে ফাউল করায় সরাসরি লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন। ১০ জন নিয়ে খেলা নাপোলির বিপক্ষে সুযোগটা ভালভাবেই কাজে লাগায় ওল্ড লেডিরা।

২৮ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে গোল করে জুভেন্টাসকে ১-০ গোলের লিড এনে দেন মিরালেম পিজানিক। ৩৩ মিনিটে সমতায় ফেরার সুযোগ পেয়েছিল নাপোলি। তবে জিয়েলিস্কির বাড়নো বলটাকে গোলে পরিণত করতে ব্যর্থ হন লোরেনো ইনসিগনি। ৩৪ মিনিটে ফাউল করায় হলুদ কার্ড দেখেন জুভেন্টাসের পিজানিক। ৩৮ মিনিটে পিজানিকের শর্ট ফিরিয়ে দেন নাপোলির বদলি গোলরক্ষক ডেভিড ওসপিনা। ৩৯ মিনিটে বারনারডেসচির নেওয়া কর্নার থেকে হেড দিয়ে বল জালে জড়ান ইমার ক্যান। ২-০ গোলে এগিয়ে যায় জুভেন্টাস। প্রথমার্ধে আর ব্যবধান বাড়াতে পারেনি আলেগ্রির দল।

বিরিতর পর শুরুতেই বিপদে পড়ে অতিথি দলটি। ৪৭ মিনিটে জুভেন্টাসের পিজানিক ফাউল করায় দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন। নাপোলির মতো জুভেন্টাসও ১০ জনের দলে পরিণত হয়। ৬১ মিনিটে ইনসিগনির ক্রস থেকে বল জালে জড়াতে ভুল করেননি ক্যালেজন। ফলে ব্যবধান দাঁড়ায় ২-১ গোলে।

৬৮ ও ৭০ মিনিটে দু’টি গোলের সুযোগ হাতছাড়া হয় নাপোলির। দু’টি সুযোগই নষ্ট করেন জিয়েলিস্কি। এরপর চেষ্টা করেও আর সমতায় ফিরতে পারেনি নাপোলি। ফলে ২-১ গোলে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আলেগ্রির শিষ্যরা। এই জয়ে ২৬ ম্যাচে ৭২ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকার দ্বিতীয় স্থানে থাকা নাপোলির চেয়ে ১৬ পয়েন্ট এগিয়ে থেকে শীর্ষস্থান আরও মজবুত করলো ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো-পাওলো দিবালাদের জুভেন্টাস।

বাংলাদেশ সময়: ০৪১০ ঘণ্টা, মার্চ ০৪, ২০১৯
আরএআর/এইচএ/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2019-03-04 04:16:45