[x]
[x]
ঢাকা, শনিবার, ৬ মাঘ ১৪২৫, ১৯ জানুয়ারি ২০১৯
bangla news

ভারতীয় দুই দলই ৩৫ রানে অলআউট!

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০১-১০ ৩:৫৪:০০ পিএম
ছবি: প্রতিকী

ছবি: প্রতিকী

ভারতের প্রথম শ্রেণি ক্রিকেটের সর্বোচ্চ আসর রঞ্জি ট্রফিতে প্রায় একই সময়ে দুটি ভিন্ন ম্যাচে অস্বাভাবিক একটি অঘটন ঘটেছে। রাজস্থানের বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ত্রিপুরা মাত্র ৩৫ রানে অলআউট হয়েছে। একই ঘটনা ঘটেছে অন্ধ্র ও মধ্য প্রদেশের ম্যাচেও। নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে মধ্য প্রদেশ ঠিক ৩৫ রানেই সবকটি উইকেট হারিয়েছে।

আগরতলায় ‘সি’ গ্রুপের ম্যাচে রাজস্থানের মুখোমুখি হয় ত্রিপুরা। তবে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রথম ইনিংসে মাত্র ৩৫ করতে পারে ত্রিপুরা। সর্বোচ্চ ১১ রান করে অপরাজিত থাকেন নিলামবুজ ভাটস। তবে মজার ব্যাপার দলের আর কেউই দুই অঙ্কের ঘরে পৌঁছাতে পারেননি। ৬ জন ব্যাটসম্যান, যাদের ব্যাট থেকে কোনো রানই আসেনি।

আনিকেত চৌধুরী ১১ রানে ৫টি উইকেট তুলে নেন। তানভীর উল-হক তো মাত্র এক রানে ৩ উইকেট দখল করেন।

রাজস্থান জবাবে ২১৮ করলে, দ্বিতীয় ইনিংসেও বেশ সুবিধা করতে পারেনি ত্রিপুরা। এবার সংগ্রহ ১০৬। ফলে ম্যাচে ইনিংস ও ৭৭ রানে হার।

প্রথম শ্রেণির ইতিহাসে এটি ত্রিপুরার সর্বনিম্ন স্কোর। এর আগে ১৯৯৬ সালে বেঙ্গলের বিপক্ষে ৪২ রান ছিল তাদের সর্বনিম্ন স্কোর। তবে ২০১০ সালে মাত্র ২১ রানে অলআউট হওয়া হায়দ্রাবাদ লজ্জার রেকর্ডটি ধরে রেখেছে এখনও।

এদিকে বিস্ময়করভাবে একই ঘটনা ঘটে ইন্দোরে ‘বি’ গ্রুপে মধ্য প্রদেশের শেষ ইনিংস ও ম্যাচের চতুর্থ ইনিংসে। অন্ধ্রর ১৩২ রানের প্রথম ইনিংসের জবাবে মধ্য প্রদেশ প্রথম ইনিংসে ৯১ রানে অলআউট হয়। পরে অন্ধ্র নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ৩০১ রান করে। কিন্তু মধ্য প্রদেশের দ্বিতীয় ইনিংসে নামে ধস।

আরিয়ামান বিরলা (১২) ও যশ ডুবে (১৬) শুধুমাত্র দুই অঙ্ক ছুঁতে পারেন। ত্রিপুরার সঙ্গে আরেকটি ব্যাপার মিল রেখে এই দলেরও ৬ ব্যাটসম্যান ‘ডাক’ মারেন। অন্ধ্রর ভেঙ্কট সসিকনাথ ৬ উইকেট পান। মধ্য প্রদেশ ৩০৭ রানে হার মানে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪৮ ঘণ্টা, ১০ জানুয়ারি, ২০১৯
এমএমএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ক্রিকেট
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14