bangla news

লংকা বনাম কোহলির ফাইনাল

221 |
আপডেট: ২০১৪-০৪-০৬ ৩:৪৪:০০ এএম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ক্রিকেট খেলাটা দলীয় খেলা, ১১ জনের খেলা। এর মাঝেও থাকে ব্যক্তিগত নৈপূণ্য। রোববার টি-২০ বিশ্বকাপের ফাইনালে লড়ছে ভারত ও শ্রীলংকা। দু’দলের খেলার চেয়ে যেন বেশি আলোচনা হচ্ছে বিরাট কোহলিকে নিয়েই।

ঢাকা: ক্রিকেট খেলাটা দলীয় খেলা, ১১ জনের খেলা। এর মাঝেও থাকে ব্যক্তিগত নৈপূণ্য। রোববার টি-২০ বিশ্বকাপের ফাইনালে লড়ছে ভারত ও শ্রীলংকা। দু’দলের খেলার চেয়ে যেন বেশি আলোচনা হচ্ছে বিরাট কোহলিকে নিয়েই।

কোহলির নাম গণমাধ্যম ও সাবেক ক্রিকেটাররা এমনভাবে উচ্চারণ করছেন যে, সব ছাপিয়ে মনে হচ্ছে ফাইনাল যতটা না ভারতের, তার চেয়ে বেশি কোহলির। আর  প্রতিপক্ষ শ্রীলংকা।

ফাইনালের আগে দুই দলের অধিনায়কের সংবাদ সম্মেলনেও বারবার ওই একটি নামই উঠে এসেছে। কোহলিকে নিয়ে ম্যাচের আগে-পরের বহু প্রশ্নের উত্তরই বেরিয়ে আসছে।

ভারত-কাপ্তান মাহেন্দ্র সিং ধোনি সেমিফাইনালের দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে কোহলির পারফরম্যান্সে এত খুশি যে, নিজ হাতে জয়ের রানটি পর্যন্ত নিলেন না। কোহলির হাত দিয়ে বিজয়ের রানটি আনতেই তার এই কৌশল। পরে বললেন কোহলির জন্য এটি তার উপহার।  

নিজ দলের অধিনায়কের পাশাপাশি বিপক্ষ দলের অধিনায়ককেও এই কোহলিকে নিয়েই নানা প্রশ্নের উত্তর দিতে হলো। লংকান দলপতি লাসিথ মালিঙ্গা বললেন, আমরা নির্দিষ্ট একজন ব্যাটসম্যানকে ঘিরে বোলিং কৌশল নির্ধারণ করছি না। ওদের ৬ জনের মতো ভালো ব্যাটসম্যান রয়েছে। সবাইকে ঘিরেই আমরা রণকৌশল সাজিয়েছি।  

এতেও খান্ত হলেন না সাংবাদিকরা। এক পর্যায়ে লংকান দলপতি সাংবাদিকদের মুখ বন্ধ করতে উত্তর দিলেন এভাবে-ওর জন্য একটি ভালো বলই যথেষ্ট। ওই ধরনের একটি ডেলিভারি দেওয়ার মতো তার দলে এমন বল করার অনেক বোলার রয়েছেন। 

টি-২০ বিশ্বকাপের আগেই ঢাকায় হয়ে গেল এশিয়া কাপ। নিকট অতীতের এশিয়া কাপ জিতে আত্মবিশ্বাসে টগবগে থাকার কথা ছিল শ্রীলংকার। কিন্তু এরপরেও তারা স্বস্তিতে নেই। এর কারণও কোহলি।

সেমিফাইনালে ভারত দক্ষিণ আফ্রিকাকে যেভাবে উড়িয়ে দিল তার নেপথ্যেও বিরাট কোহলির ব্যাটিং। এর আগে সুপার টেনের সবগুলো ম্যাচেই ধারাবাহিকভাবে রান করেছেন এই তরুণ ব্যাটসম্যান। এর মধ্যে দু’টি ফিফটিও রয়েছে। ওপরের দিকে কোহলির দারুণ ব্যাটিং পরের দিকে ব্যাটসম্যানদের আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দেয়। যার ফলস্বরূপ ভারত একের পর এক ম্যাচ জিতে চলেছে। আজ লংকান বাধা টপকালে কোহলির ভারত হবে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ান। 

তাই যতটা না ভারতের ফাইনাল তার চেয়ে বেশি কোহলির ফাইনাল একথা বলার অনেক যুক্তিই রয়েছে। পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে ধারাবাহিক রান করেছেন ভারতের এই ব্যাটিং স্তম্ভ, যা বিপক্ষ দলকে ভারতের সামনে শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে দেয়নি।        

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের অন্তর্বর্তীকালীন প্রেসিডেন্ট ও সাবেক টেস্ট খেলোয়াড় সুনীল গাভাস্করও কোহলির প্রশংসায় উচ্ছসিত। শচীনের পরে সবচেয়ে বড় তারকা মানছেন কোহলিকে।

ও যেভাবে খেলছে তাতে শচীনের অনেক রেকর্ড ভাঙলেও অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না, এভাবেই ভারতের সহ-অধিনায়কের পারফরম্যান্সে প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছেন সাবেক এই তারকা ব্যাটসম্যান। 

** মুখিয়ে আছেন মাহেলা-সাঙ্গাকারা

বাংলাদেশ সময়: ১৩৪৪ ঘণ্টা, এপ্রিল ০৬, ২০১৪      

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2014-04-06 03:44:00