ঢাকা, রবিবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ২২ রবিউস সানি ১৪৪৩

খেলা

হার দিয়ে শুরু বাংলাদেশের

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৩৭ ঘণ্টা, জুলাই ৯, ২০১০
হার দিয়ে শুরু বাংলাদেশের

নটিংহ্যাম: ইংল্যান্ডের কাছে ৬ উইকেটের হার দিয়েই ন্যাটওয়েস্ট সিরিজ শুরু করলো বাংলাদেশ। সফরকারীদের বেঁধে দেওয়া ২৫১ রানের লক্ষ্য ২৯ বল বাকি থাকতেই পূরণ করে স্বাগতিকরা।



ট্রেন্টব্রিজে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে মাশরাফি বাহিনীর সূচনাটা মন্দ হয়নি। ৬.১ ওভারে দলের ৪০ রানের মাথায় স্টুয়ার্ট ব্রডের এলবিডবুøয়ের ফাঁদে পড়েন উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল (২৮)। জুনায়েদ সিদ্দিকীকে নিয়ে দলীয় ইনিংসে আরো ৩০ রান যোগ করার পর বিদায় নেন ইমরুল কায়েস।   অ্যান্ডারসনের অফ স্ট্যাম্পের বল কাভারে খেলতে গিয়ে মর্গানের হাতে ধরা পড়েন (১৪)।

তৃতীয় উইকেট জুটিতে রকিবুল হাসান ও জুনায়েদ ৬৬ রান যোগ করলে বড় স্কোরের সম্ভাবনা তৈরি হয়। ব্যাক্তিগত অর্ধ-শতকের পর ইয়ার্ডির এলবিডব্লুর শিকার হন জুনায়েদ। এরপর সাকিব আল হাসান ২০ ও মুশফিকুর রহিম ২২ রানে আউট হন।

দলীয় ২৩৬ রানে প্রান্ত বদলের সময় ফয়সালের সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝিতে রান-আউট হন রকিবুল। শেষ দিকে রানের গতি স্লোথ থাকায় নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২৫০ তুলতে পারে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশ পক্ষে রকিবুল ৭৬ আর জুনায়েদ ৫১  রান করেন।

জেমস অ্যান্ডারসন ৭৪ রান দিয়ে তিনটি উইকেট নেন। এছাড়া টিম ব্রেসনান ৪০ রানে দু’টি এবং ব্রড ৪৩ রানে দুই উইকেট নেন।

২৫১ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে দুই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান স্ট্রাউস ও কিসওয়েটারের ব্যাটিংয়ে ১১.৩ ওভারে ৭৫ রান তুলে ফেলে ইংলিশরা। ব্যক্তিগত অর্ধ-শতকের পর রান আউটের ফাঁদে পড়েন স্ট্রাউস। দলীয় ৯৩ রানে সাকিবের বলে ফয়সালের হাতে ধরা পড়েন কিসওয়েটার। কিন্তু পরবর্তী ব্যাটসম্যানরা ভালো করায় সহজে জয় তুলে নেয় স্বাগতিকরা।

ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ইয়ান বেলের অপরাজিত ৮৪ রান। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৫০ রান আসে স্ট্রাউসের ব্যাট থেকে। এছাড়া পল কলিংউড ৩৩ ও ক্রেগ কিসওয়েটার ৩২ রান করেন।

সাকিব ৩৫ রানে দু’টি উইকেট নেন। এছাড়া আব্দুর রাজ্জাক ৬৪ রান দিয়ে পান এক উইকেট।

বাংলাদেশ সময়: ১০৫৫ ঘন্টা, জুলাই ০৯, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa