ঢাকা, শুক্রবার, ২২ আশ্বিন ১৪২৯, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

জাতীয়

মির্জাপুরে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭২০ ঘণ্টা, আগস্ট ১৯, ২০২২
মির্জাপুরে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে মোছা. মারিয়া আক্তার (১৯) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। তাকে হত্যার পর ফাঁসিতে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে বলে অভিযোগ করছেন নিহতের পরিবার।

বৃহস্পতিবার (১৮ আগস্ট) রাতে মির্জাপুর উপজেলার লতিফপুর ইউনিয়নের গোড়াকী গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

নিহত মারিয়া তরফপুর ইউনিয়নের ডৌহাতলী গ্রামের মৃত সোনা মিয়ার মেয়ে।

পুলিশ ও মারিয়ার পরিবার জানায়, গত ৭ মাস আগে মারিয়া আক্তারের সঙ্গে একই উপজেলার লতিফপুর ইউনিয়নের গোড়াকী গ্রামের বাবর আলীর সিঙ্গাপুর প্রবাসী ছেলে শাকিল খানের বিয়ে হয়। বিয়ের কয়েকদিন পর থেকে তাদের মধ্যে কলহ শুরু হয়। এ নিয়ে শাকিল মাঝে মধ্যেই মারিয়ার ওপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালাতো।

নিহতের ভাই মারুফ বলেন, বিয়ের দুই মাস পর শাকিল সিঙ্গাপুর চলে যান। বিদেশ থেকেও তিনি মারিয়াকে মুঠোফোনে গালিগালাজ করতেন। শাকিল তার ভাড়া করা লোকজন দিয়ে মারিয়াকে হত্যার পর ফাঁসিতে ঝুলিয়ে রাখতে পারেন।

তিনি আরও বলেন, রাতে খবর পেয়ে আমরা বোনের বাড়ি গিয়ে দেখি ঘরের দরজা খোলা। মারিয়া ফ্যানের সঙ্গে ঝুলছিল কিন্তু তার পা খাটের ওপর ভাজ হয়ে আছে। ওরা আমার বোনকে হত্যার পর ফ্যানের সঙ্গে ফাঁস লাগিয়ে ঝুলিয়ে রেখেছে। আমি বোনের হত্যার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচার দাবি করছি।

তবে এ বিষয়ে শাকিলের পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

লতিফপুর ইউপির ৩ নম্বর ওয়ার্ড মেম্বার মো. আমিন উদ্দিন বাংলানিউজকে বলেন, শশুর শ্বাশুড়ির সঙ্গে মারিয়ার সম্পর্ক ভালো ছিল। তবে স্বামীর সঙ্গে তার কী হয়েছে সেটি আমার জানা নেই।

লতিফপুর ইউপির চেয়ারম্যান মো. আলী হোসেন রনি জানান, পুলিশ এসে মারিয়ার মরদেহ উদ্ধার করেছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে জানা যাবে এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা।

মির্জাপুর থানার ডিউটি অফিসার মো. আরিফ তালুকদার জানান, সুরতহাল শেষে মারিয়ার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। থানায় ইউডি মামলা হয়েছে। রিপোর্ট পাওয়ার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৭১৯ ঘণ্টা, আগস্ট ১৯, ২০২২ 
এফআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa