ঢাকা, বুধবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

জাতীয়

ডিপিডিসির গাড়ি ভাঙচুর করে ড্রাইভারকে মারধর, গ্রেফতার ৪

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২১ ঘণ্টা, আগস্ট ১৮, ২০২২
ডিপিডিসির গাড়ি ভাঙচুর করে ড্রাইভারকে মারধর, গ্রেফতার ৪

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জে বিদ্যুৎ বিতরণ সংস্থা ডিপিডিসির গাড়ির ড্রাইভারকে মারধর ও গাড়ি ভাঙচুর করার দায়ে চার যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনিচুর রহমান মোল্লা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

মঙ্গলবার (১৮ আগস্ট) দুপুরে চর সৈয়দপুর এলাকায় ওই ঘটনা ঘটে।

গ্রেফতাররা হলেন- শহরের জামতলা ধোপাপট্টির মাসুদের দু’ছেলে তিয়ান ( ২৬) ও জিসান (১৮), সোনারগাঁ মোরগাড়াপাড়া এলাকার তাজুল ইসলাম ছেলে ফারদিন (২৬) ও আনোয়ার হোসেনের ছেলে সাজিদ (২৫)।

মামলার বাদী নারায়ণগঞ্জ ডিপিডিসির সহকারী প্রকৌশলী মো. আব্দুল হাই বলেন, গত ১৫ আগস্ট বিকেল ৬টায় ডিপিডিসির ড্রাইভার আবুল কাশেম (৫৮) অফিসের কাজে নারায়ণগঞ্জ চর সৈয়দপুর কবরস্থানের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার সময় ড্রাইভার মুন্সীগঞ্জের কাঠপট্টি শান্তা ফিলিং স্টেশনের পৌঁছালে গাড়ির সামনে একটি অটোরিকশা এসে পড়ে। এতে তিনি গাড়িটি ব্রেক করতে বাধ্য হন। ওই সময় গাড়ির পেছনে থাকা তিনটি মোটরসাইকেলের কয়েকজন যুবক রেগে যান এবং গাড়ির ড্রাইভারকে ব্যাপক মারধর করেন।

তিনি আরও বলেন, মামলার ১নং আসামি তিয়ান ও ২নং আসামি জিসান রাস্তার পাশে থাকা ইট পাটকেল দিয়ে আমার প্রতিষ্ঠানের ড্রাইভার আবুল কাশেমের ডান হাতে আঘাত করে বেশ জখম করে। মারধরের শিকার হয়ে ড্রাইভার মাটিতে পড়ে গিয়ে চিৎকার করতে থাকেন। পরে আশপাশের জনগণ এগিয়ে এসে ওই যুবকদের আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে খবর দেয়।

আব্দুল হাই বলেন, আসামিরা গাড়াটি ভাঙচুর করে ১ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি করেছে।

সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনিচুর রহমান মোল্লা বলেন, ওই আসামিদের আটক করে কোর্টে চালান করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে সরকারি কাজে বাধা প্রদান, সরকারি গাড়ি ভাঙচুরসহ লুটপাটের অভিযোগে মামলা হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০২০ ঘণ্টা, আগস্ট ১৮, ২০২২
এমআরপি/জেডএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa