ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ আষাঢ় ১৪২৯, ০৫ জুলাই ২০২২, ০৫ জিলহজ ১৪৪৩

আন্তর্জাতিক

রাজিব গান্ধী হত্যা মামলায় আসামির জামিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪০৬ ঘণ্টা, মে ১৮, ২০২২
রাজিব গান্ধী হত্যা মামলায় আসামির জামিন

৩১ বছর কারাভোগের পর মুক্তি পেয়েছেন ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী রাজিব গান্ধী হত্যা মামলায় সাজাপ্রাপ্ত আসামি এ জি পেরারিভালান।

বুধবার (১৮ মে) দেশটির সুপ্রিম কোর্ট তাকে জামিন দেন।

পেরারিভালান যাবজ্জীবন কারাবাসের সাজা ভোগ করছিলেন। যদিও করোনা পরিস্থিতিতে তিনি বর্তমানে প্যারোলে আছেন।

রাজীব গান্ধী হত্যা মামলায় অন্যতম আসামি পেরারিভালান হত্যাকারীদের বিস্ফোরক পদার্থ সরবরাহ করেছিলেন। ১৯৯১ সালের ১১ জুন পেরিয়ার থিডাল থেকে তাকে গ্রেফতার করে সিবিআই। বিস্ফোরকের জন্য যে ৯ ভল্টের ব্যাটারির প্রয়োজন পড়েছিল, সেটিই সরবরাহ করেছিলেন পেরারিভালান।

দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর তাকে মৃত্যুদণ্ডের সাজা শোনানো হয়। যদিও পরবর্তীতে ২০১৪ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি পেরিরাভালানের সাজা কমিয়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দেওয়া হয়।

পেরারিভালানকে মুক্তি দেওয়ার ক্ষেত্রে বেশ কিছু শর্ত আরোপ করা হয়েছে। প্রতি মাসে নিয়ম করে তাকে নিকটবর্তী থানায় হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট। তবে দীর্ঘ কারাজীবনে পেরারিভালান পড়াশোনা করেছেন এবং বেশ কিছু শিক্ষাগত যোগ্যতাও অর্জন করেছেন। একটি বইও লিখেছেন তিনি।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সুপ্রিম কোর্টের এই সিদ্ধান্ত রাজিব গান্ধী হত্যার বাকি ছয় অভিযুক্তের মুক্তির পথ প্রশস্ত করেছে।

১৯৯১ সালের ২১ মে একটি নির্বাচনী সভায় আত্মঘাতী বিস্ফোরণে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয় ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীকে। ওই ঘটনায় তিন জনকে প্রথমে দোষী সাব্যস্ত করে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়। হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার অপরাধে আরও চার জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট। পরে আসামিদের প্রাণভিক্ষার আবেদনে সাড়া দিয়ে তাদের সাজা কমিয়ে সবাইকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দেওয়া হয়।

সূত্র: এনডিটিভি

বাংলাদেশ সময়: ১৪০৬ ঘণ্টা, মে ১৮, ২০২২
কেএআর/এনএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa