ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ৩০ মে ২০২৪, ২১ জিলকদ ১৪৪৫

স্বাস্থ্য

ওষুধ রপ্তানিতে ১০ শতাংশ প্রণোদনা দেওয়া হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭২৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২৪
ওষুধ রপ্তানিতে ১০ শতাংশ প্রণোদনা দেওয়া হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ঢাকা: দেশে উৎপাদিত ওষুধ রপ্তানিতে উৎসাহ দিতে সরকারিভাবে প্রণোদনা দেওয়া হচ্ছে এবং চলতি বছরও ১০ শতাংশ হারে প্রণোদনা দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী সামন্ত লাল সেন।  

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য মুহাম্মদ সাইফুল ইসলামের এক প্রশ্নের লিখিত উত্তরে মন্ত্রী এ তথ্য জানান।

এ সময় স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন।

সামন্ত লাল সেন বলেন, বাংলাদেশ ওষুধ শিল্পে উত্তরোত্তর উন্নতি করছে। দেশের মোট চাহিদার ৯৮ শতাংশ ওষুধ দেশেই উৎপাদিত হয়। বাংলাদেশে উৎপাদিত প্রায় সব ধরনের ওষুধ বর্তমানে ইউরোপ ও আমেরিকাসহ বিশ্বের ১৫৭টিরও বেশি দেশে  রপ্তানি করা হচ্ছে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশে উৎপাদিত ওষুধ বিদেশে রপ্তানি উৎসাহিত করতে উৎপাদনকারীদের সরকারিভাবে প্রণোদনা দেওয়া হয়। ২০২৪ সালের জানুয়ারি মাস থেকে দেশে উৎপাদিত ওষুধ রপ্তানিতে ১০ শতাংশ হারে এবং ফার্মাসিউটিক্যাল পণ্য রপ্তানির জন্য ৮ শতাংশ হারে সরকারিভাবে প্রণোদনা দেওয়া হবে বলে সার্কুলার জারি হয়েছে।

বিগত বছরে দেশে উৎপাদিত ওষুধ রপ্তানিতে ২০ শতাংশ হারে এবং ফার্মাসিউটিক্যাল পণ্য রপ্তানিতে ১০ শতাংশ হারে সরকারিভাবে প্রণোদনা দেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২৪
এসকে/আরএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।