ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৭ মে ২০২২, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩

পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য

পিটিয়ে মারা চিতা বিড়াল নিয়ে গ্রামবাসীর সেলফি-উল্লাস

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০৩ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৩, ২০২২
পিটিয়ে মারা চিতা বিড়াল নিয়ে গ্রামবাসীর সেলফি-উল্লাস

হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলায় একটি চিতা বিড়ালকে পিটিয়ে হত্যা করেছেন স্থানীয় জনগণ। শুধু হত্যা করেই ক্ষান্ত হননি তারা, বিড়ালটির মরদেহ নিয়ে উল্লাসেও মেতে ওঠেন, তুলতে থাকেন সেলফি-ছবি।

  এ ঘটনায় মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে বন বিভাগ।

শনিবার (২২ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার দেওরগাছ ইউনিয়নের কাচুয়া গ্রামে চিতা বিড়ালটিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। পরে এলাকার একদল মানুষ মৃত বিড়ালটি নিয়ে উল্লাস করেন। মৃত বিড়ালটি উঁচু করে ধরে ছবি তুলতে থাকেন অনেকে।   

বন বিভাগ জানায়, পুরুষ চিতা বিড়ালটি প্রাপ্ত বয়স্ক ছিল। কচুয়া গ্রামবাসী একটি পুকুরের পাড়ে এটিকে পিটিয়ে মেরেছেন। এ বিষয়ে ছয়জনকে আসামি করে চুনারুঘাট থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে।  

ধারণা করা হচ্ছে, আশপাশের চা বাগান অথবা ধান ক্ষেত থেকে বিড়ালটি গ্রামে ঢুকলে গ্রামবাসী প্রাণীটিকে পিটিয়ে মেরেছেন।

চুনারুঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সিদ্ধার্থ ভৌমিক জানান, বিষয়টি জানার পর বন বিভাগকে মামলা করতে বলা হয়েছে। বিড়ালটিকে যারা মেরেছেন, তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।

চিতা বিড়ালের ইংরেজি নাম Leopard cat। এটির বৈজ্ঞানিক নাম Prionailurus bengalensis।  
এটি আকারে ছোট, প্রায় পোষা বিড়ালের সমান একটি স্তন্যপায়ী প্রাণী। এদের পা দীর্ঘ। ছেলে ও মেয়ে বিড়ালের মধ্যে চেহারার ভিন্নতা পরিলক্ষিত হয় এবং ছেলের ওজন মেযের তুলনায় বেশি। এ প্রজাতির বিড়ালের মাথাসহ দেহের আকার ৬০-৬৬ সেন্টিমিটার এবং ওজন প্রায় তিন-চার কেজি হয়ে থাকে।

বাংলাদেশের ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের রক্ষিত বন্যপ্রাণীর তালিকার তফসিল-১ অনুযায়ী এ প্রজাতিটি সংরক্ষিত।

মাংসাশী প্রাণীটি বাংলাদেশ ছাড়াও ভুটান, ভারত, মিয়ানমার, নেপাল, চীন, পাকিস্তান, আফগানিস্তান, রাশিয়া ও কোরিয়ায় পাওয়া যায়।

বাংলাদেশ সময়: ১১৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২২, ২০২২
এসআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa