ঢাকা, বুধবার, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৯ মে ২০২৪, ২০ জিলকদ ১৪৪৫

নির্বাচন ও ইসি

জনশূন্য জগন্নাথপুরের ভোটকেন্দ্র

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩০৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০২০
জনশূন্য জগন্নাথপুরের ভোটকেন্দ্র জনশূন্য ভোটকেন্দ্র। ছবি: বাংলানিউজ

সুনামগঞ্জ: সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর পৌরসভার মেয়র পদে উপ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে ঢিলেঢালাভাবে।

শনিবার (১০ অক্টোবর) সকাল ৯টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে চলবে বিরতিহীনভাবে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

তবে ভোট কেন্দ্রগুলোতে ভোটার উপস্থিতি নেই বললেই চলে। ভোট কেন্দ্রের মাঠগুলো একদম ফাঁকা।

জানা যায়, মেয়র পদে নির্বাচন হচ্ছে মাত্র দুই মাসের জন্য। বিকেলে যিনি মেয়র হবেন তার মেয়াদকাল হবে মাত্র দুই মাস। আগামী ডিসেম্বর মাসে আবার দেশব্যাপী পৌর নির্বাচনের সময় এই পৌরসভায়ও নির্বাচন হবে। তাই এই নির্বাচন নিয়ে ভোটারদের মধ্যে তেমন উৎসাহ উদ্দিপনা নেই। আগ্রহ নিয়ে কেউ ভোটকেন্দ্রে আসছেন না। এ জন্য ভোটকেন্দ্রগুলো প্রায় ফাঁকা আছে।

কিছু কেন্দ্রে মেয়র প্রার্থীর লোক ভোটারদের নিয়ে আসছেন। সকালের দিকে কিছু ভোটার উপস্থিতি হলেও পরক্ষণে ভোটকেন্দ্র একেবারে ফাঁকা হয়ে যায়।

ভোটাররা বলছেন, নির্বাচন তো আর নির্বাচন নাই। মাত্র দুই মাসের জন্য নির্বাচন হচ্ছে। তাই অনেকেই ভোটকেন্দ্রে আসতে রাজি না।

নির্বাচনে মেয়র পদে চার জন প্রার্থী ভোটযুদ্ধে প্রতিযোগীতা করছেন। তাদের মধ্যে তিন জনই যুক্তরাজ্য প্রবাসী। পৌরসভার ২৮ হাজার ৫৫৯ জন ভোটারদের ভোট প্রয়োগের কথা রয়েছে। বিগত ২০১৫ সালে সর্বশেষ জগন্নাথপুর পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে নৌকা প্রতীক নিয়ে আব্দুল মনাফ মেয়র নির্বাচিত হন।

চলতি বছরের ১১ জানুয়ারি মেয়র আবদুল মনাফ মারা গেলে ফেব্রুয়ারি মাসে জগন্নাথপুর পৌরসভার উপ-নির্বাচনের তফশিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী ২৯ মার্চ ভোট গ্রহণের কথা থাকলেও পরে করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) কারণে স্থগিত করা হয় নির্বাচন। পরে ২১ সেপ্টেম্বর মেয়র পদে উপ নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা হলে প্রার্থীরা আবার মাঠে নামেন। আজ ১০ অক্টোবর চলছে ভোট গ্রহণ।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০২০
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।