ঢাকা, রবিবার, ৮ বৈশাখ ১৪৩১, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ১১ শাওয়াল ১৪৪৫

শিক্ষা

চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের যুদ্ধে শিক্ষার্থীদের প্রস্তুত করছে বিডিইউ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১৪৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০২০
চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের যুদ্ধে শিক্ষার্থীদের প্রস্তুত করছে বিডিইউ

ঢাকা: প্রতিষ্ঠার শুরুতেই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি চতুর্থ শিল্প বিপ্লব উপযোগী দু’টি প্রোগ্রাম ইন্টারনেট অব থিংস (আইওটি) এবং আইসিটি ইন অ্যাডুকেশনের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের জন্য প্রস্তুত করছে বলে জানিয়েছেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুনাজ আহমেদ নূর।

তিনি জানান, প্রক্রিয়াধীন রয়েছে ডেটা অ্যানালাইসিস অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট প্রোগ্রাম চালু করার বিষয়টিও।

বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও বিজয় দিবস উপলক্ষে ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে আয়োজিত ‘২০৪১-এ ডিজিটালাইজেশনের মাধ্যমে উন্নত সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে বিডিইউ এর ভূমিকা’ শীর্ষক সেমিনার প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপাচার্য এ কথা বলেন।

উপাচার্য বলেন, ডিজিটাল প্রযুক্তি নির্ভর উন্নত সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনে প্রতিষ্ঠার শুরু থেকেই নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে দেশের প্রথম ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়।

উপাচার্য আরও বলেন, তথ্যপ্রযুক্তির সর্বোচ্চ ব্যবহার নিশ্চিত ও ডিজিটাল বাংলাদেশকে টেকসই করে ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত সমৃদ্ধ বাংলাদেশে পরিণত হওয়ার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং তার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় এই বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেছেন।  

উপাচার্য বলেন, এই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের চতুর্থ শিল্প বিপ্লবে বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দিতে উপযোগী করে গড়ে তুলতে আমার বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার শুরু থেকেই প্রত্যেক শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তাদের ই-মেইল, ওয়েবসাইট, ভার্চুয়াল মেশিন দিয়েছি। শিক্ষার্থীদের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব তত্ত্বাবধানে তৈরি করা হয়েছে লার্নিং ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম (এলএমএস), আইওটি ও অত্যাধুনিক কম্পিউটার ল্যাবসহ বিভিন্ন ল্যাব।  

সেমিনারে বিশ্ববিদ্যালয়ের দু’টি প্রোগ্রামের বিভিন্ন সেমিস্টারের শিক্ষার্থীরা প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন। যেখানে আইসিটিই প্রোগ্রামের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মোসা. রাকিবা খানম জিসা প্রথম, একই প্রোগ্রামের হাসিবুল আলম প্লাবন দ্বিতীয় এবং আইওটি প্রোগ্রামের ২০২৯-২০ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মো. আরিফুজ্জামান রিপন তৃতীয় স্থান অর্জন করেছেন। প্রথম ও দ্বিতীয় স্থান অর্জনকারীকে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে পুরস্কৃত করা হবে।

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মো. আশরাফ উদ্দিনসহ শিক্ষক-কর্মকর্তা-শিক্ষার্থীরা বক্তব্য দেন।

বাংলাদেশ সময়: ০১৪২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৫, ২০২০
এমআইএইচ/জেআইএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।