ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৭ মে ২০২৪, ১৮ জিলকদ ১৪৪৫

শিক্ষা

ভাটারা কালী মন্দির প্রাঙ্গণে বই উৎসব

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৪৬ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২, ২০২০
ভাটারা কালী মন্দির প্রাঙ্গণে বই উৎসব

‘নৈতিক শিক্ষায় আলোকিত হবো, মানবতাবোধে জাগ্রত হবো’ স্লোগানকে সামনে রেখে বই উৎসব উদযাপন করেছে মন্দিরভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রম পঞ্চম পর্যায়।

বুধবার (১ জানুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর ভাটারা কালী মন্দির প্রাঙ্গণে পঞ্চম পর্যায়ের এ উৎসব উদযাপন করা হয় বলে সংস্থাটির পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

উৎসবে ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (উন্নয়ন) ড. মোয়াজ্জেম হোসেন প্রধান অতিথি হিসেবে শিশু শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বই তুলে দেন বলে এতে জানানো হয়।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মন্দিরভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রম-পঞ্চম পর্যায়ের প্রকল্প পরিচালক ও অতিরিক্ত সচিব রণজিত কুমার দাস, স্থানীয় ওয়ার্ড কমিশনার খন্দকার নজরুল ইসলাম, ভাটারা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুভাষ সরকার, ফিল্ড সুপারভাইজার রণজিত বাড়ৈ, পলাশ পাল, মাস্টার ট্রেইনার সমীর বিশ্বাস. কম্পিউটার অপারেটর সুমন বিশ্বাস প্রমুখ।

ভাটারা শ্রী শ্রী কালী মন্দির কার্য নির্বাহী কমিটির সভাপতি অ্যাডভোকেট রুপচাঁন সরকারের সভাপতিত্বে অভিভাবকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রভাষ চৌধুরী, সম্পা দেবনাথ ও মন্দিরভিত্তিক স্কুলের শিক্ষিকা মুক্তা মিত্র।  

প্রধান অতিথি অতিরিক্ত সচিব ড. মোয়াজ্জেম হোসেন তার বক্তব্যে বলেন, বঙ্গবন্ধু সোনার বাংলা গড়তে চেয়েছিলেন। আর সেই সোনার বাংলা গড়তে মানবিক শিক্ষা, উন্নত চরিত্র গঠন অবশ্যই জরুরি। মন্দিরভিত্তিক স্কুলে এমন শিক্ষাই দান করা হয়।

অতিরিক্ত সচিব রণজিত কুমার দাস তার বক্তব্যে বলেন, শিশুরা যাতে উন্নত চরিত্রের মানুষ হয়ে উঠে দেশের দেবা করতে পারে, সেই শিক্ষাই দেওয়া হয় মন্দির ভিত্তিক স্কুলে।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১, ২০১৯
এবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।