ঢাকা, শনিবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৫ মে ২০২৪, ১৬ জিলকদ ১৪৪৫

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যের পদত্যাগ দাবি মমতার

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০১৫
যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যের পদত্যাগ দাবি মমতার

কলকাতা: গত আগস্ট মাস থেকে একটানা চলা আন্দোলনের মধ্যে ভারতের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অভিজিত চক্রবর্তীর পদত্যাগ চাইলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

সোমবার (১২ জানুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের সামনে মুখ্যমন্ত্রী অভিজিত চক্রবর্তীর পদত্যাগ দাবি করেন।



ছাত্র আন্দোলন চলাকালে গত বছরের ৬ অক্টোবর রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে অভিজিত চক্রবর্তীকে স্থায়ী উপাচার্য ঘোষণা করার ঠিক চার মাস পর এ ঘোষণা দিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী।

গত বছরের মাঝামাঝি সময়ে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতরে এক ছাত্রীর শ্লীলতাহানীর ঘটনায় তদন্ত নিয়ে বিক্ষোভরত ছাত্র-ছাত্রীদের উপর লাঠি চালায় পুলিশ।

এর প্রতিবাদে ‘হোক কলরব’ স্লোগান তুলে আন্দোলনে শামিল হয় ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। যে আন্দোলন গোটা ভারতের বিভিন্ন কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে ছড়িয়ে পড়ে।

গত ৫ জানুয়ারি থেকে আমরণ অনশনে থাকা ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে অভিভাবকরাও প্রতীকী অনশনে যোগ দেন।

সোমবারই পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষামন্ত্রী ছাত্রদের সঙ্গে কথা বলেন। এর আগেও ছাত্রদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন শিক্ষামন্ত্রী। অনশনরত একাধিক ছাত্রছাত্রী অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার খবরও আলোচনায় আসে।

মনে করা হচ্ছে, প্রায় ছয় মাস টানা আন্দোলন চলার পর মুখ্যমন্ত্রীর এ ঘোষণায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অচলাবস্থা কেটে যাবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০১৫

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।