ঢাকা, শুক্রবার, ২০ মাঘ ১৪২৯, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১১ রজব ১৪৪৪

কর্পোরেট কর্নার

‘বিএসআরএম-বিক্রয় প্রপার্টি ফেয়ার-২০২২’ শুরু

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৫৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ৩০, ২০২২
‘বিএসআরএম-বিক্রয় প্রপার্টি ফেয়ার-২০২২’ শুরু

বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় মার্কেটপ্লেস-বিক্রয় ডট কম, প্রথমবারের মতো আয়োজন করেছে অনলাইন প্রপার্টি মেলা ‘বিএসআরএম-বিক্রয় প্রপার্টি ফেয়ার ২০২২’।  

মেলা চলাকালে ক্রেতারা সারাদেশ থেকে নিজের পছন্দের প্রপার্টি বুকিং দিতে ও কিনতে পারবেন অনলাইনেই।

সপ্তাহব্যাপী মেলাটি চলবে ৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

রাজধানীর হোটেল সারিনায় সোমবার (২৮ নভেম্বর) মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন বিক্রয় টিম ছাড়াও বিভিন্ন আবাসন প্রতিষ্ঠান, আয়োজনের স্পন্সর ও অন্যান্য কো-স্পন্সর প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

বিএসআরএম-বিক্রয় প্রপার্টি ফেয়ার-২০২২ চলাকালীন দেশের বিভিন্ন স্থানে ৫০টিরও বেশি এক্সক্লুসিভ প্রজেক্ট ছাড়াও ১৯ হাজারেরও বেশি ফ্ল্যাট, জমি এবং কমার্শিয়াল প্রপার্টির বিস্তারিত দেখতে পারবেন।  

আগ্রহী ক্রেতারা প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে অনলাইনে যোগাযোগ করতে পারবেন এবং পছন্দসই প্রপার্টি বুকিং দিতে পারবেন।

মেলায় দেশের সুপরিচিত ১০টি রিয়েল এস্টেট ডেভেলপার অংশ নিয়েছে। মেলার ‘টাইটেল স্পন্সর’ হিসেবে রয়েছে বিএসআরএম। এছাড়া মেলার সহযোগী হিসেবে আছে নাভানা রিয়েল এস্টেট, ডরিন ডেভেলপমেন্ট, আক্তার প্রপার্টিজ, জেবিএস হোল্ডিংস লিমিটেড, কৃষিবিদ গ্রুপ রিয়েল এস্টেট এবং নর্থ সাউথ প্রপার্টি ডেভেলপমেন্ট লিমিটেড।  

বিক্রয়-এর সিইও ঈশিতা শারমিন বলেন, “প্রপার্টি আমাদের জীবনের অবিচ্ছেদ্য একটি অংশ। সবাই চায় তার নিজস্ব একটা ঘর বা ফ্ল্যাট থাকুক। দেশব্যাপী আমাদের প্রপার্টি ক্রেতাদের কথা মাথায় রেখে আমরা বিভিন্ন সময় নানান অফার নিয়ে আসি। তারই ধারাবাহিকতায় আমরা প্রথমবারের মতো আয়োজন করেছি অনলাইন প্রপার্টি মেলা। আমার বিশ্বাস, প্রপার্টি ক্রেতারা ‘বিএসআরএম-বিক্রয় প্রপার্টি ফেয়ার ২০২২’-এর মাধ্যমে তাদের প্রয়োজন ও বাজেট অনুযায়ী কাঙ্ক্ষিত প্রপার্টি খুঁজে নিতে পারবেন। ”

বিক্রয়-এর হেড অব মার্কেটিং আরিফিন হোসাইন বলেন, “বিশ্বজুড়ে চলমান অর্থনৈতিক মন্দার প্রভাব পড়েছে আবাসন খাতেও। অবশ্য সব সংকটের মাঝেও কিছু সম্ভাবনা দেখা দেয়। আমাদের দেশের প্রেক্ষাপটে অনলাইন ব্যবসা ভালো প্রবৃদ্ধি করেছে। ক্রমেই মানুষ আরও বেশি অনলাইনমুখী হচ্ছে। কঠিন এই সময়ে আমাদের ভেরিফায়েড সেলারদের মাধ্যমে যাতে আমাদের গ্রাহকরা তাদের পছন্দ ও বাজেটে প্রপার্টি খুঁজে নিতে পারেন, সেই লক্ষ্যেই আমাদের এই মেলা। আশা করছি মেলায় গ্রাহকদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে আমাদের প্রয়াস স্বার্থক হয়ে উঠবে। ”

উল্লেখ্য, বিক্রয় ডট কম এখন দেশের অন্যতম চতুর্থ সেরা ব্র্যান্ড, যার মাসিক ভিজিটর ৩.৫ মিলিয়নেরও বেশি। বিক্রয় ডট কম-এ রয়েছে নতুন এবং ব্যবহৃত জিনিসের এক বিশাল সংগ্রহ, যা বাংলাদেশের যেকোনো জায়গায় আপনার প্রয়োজনীয় বেচাকেনা সহজ করে দেয়। যানবাহন থেকে শুরু করে মোবাইল ফোন, বাসা, ল্যাপটপ, পোষা প্রাণী, এক কথায় বিক্রয় ডট কম-এ আপনি সবকিছুই বেচাকেনা করতে পারেন।  

যানবাহন, প্রপার্টি, চাকরি এবং ইলেক্ট্রনিক্স-এর বিশেষ সমাহার ছাড়াও বিক্রয় ডট কম-এ আছে আরও ৫০টি ভিন্ন ক্যাটাগরি।  

বিক্রয়-এর আরেকটি সংযোজন হচ্ছে Doorstep Delivery। এটি মূলত একটি ই-কমার্স সেকশন যা ইলেকট্রনিক্স ও হোম অ্যাপ্লায়েন্স শতভাগ নিরাপত্তার সঙ্গে ক্রেতাদের নিকট পৌঁছে দেয়ার মাধ্যমে ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়ের মূল্যবান সময় বাঁচায়।  

দেশজুড়ে লাখো ক্রেতা-বিক্রেতা আর হাজারো ব্যবসায়ী ও উদ্যোক্তাদের সঙ্গে যুক্ত হয়ে বিক্রয় ডট কম বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় মার্কেটপ্লেসে পরিণত হয়েছে।  

বাংলাদেশ সময়: ১১৫০ ঘণ্টা, নভেম্বর ৩০, ২০২২
এসএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa