ঢাকা, শনিবার, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ২৮ রবিউস সানি ১৪৪৩

ট্রাভেলার্স নোটবুক

সুন্দরতম গ্রাম লোহ, সামনে চোখ ধাঁধানো মানাসলু

প্রথমবারের মতো টের পেলাম আমরা এখন হাই অল্টিচিউডে আছি। শ্বাস-প্রশ্বাস দ্রুত হচ্ছে। চড়াইয়ের মাথায় বৌদ্ধ গোম্ফা থেকে ভেসে আসছে

১১ ঘণ্টা চড়াই-উৎরাই বেয়ে ৮৬৫০ ফুট উচ্চতার নামরুংয়ে

এ ওঠার যেন কোনো শেষ নেই। মুহিত ভাই এর মধ্যেও রসিকতা করে বলেন, যতটুকু নামিয়াছ উঠিতে হইবে তার দ্বিগুণ। আমরাও বিনা বাক্য ব্যয়ে শুধু

বুড়িগন্ধাকীর সাসপেনশন ব্রিজ পেরিয়ে ফিলিম

          আমরা সির্দ্ধিবাসে এসে চা বিরতি দিলাম। আজই প্রথম চোখে পড়লো তিব্বতি বংশোম্ভূত লোকজন। এ অঞ্চলের নিচের দিকে

পাহাড়ের গায়ে ঝোলা নেপালের একমাত্র ক্লিপ ব্রিজ

এর মধ্যে এক জায়গায় গত বছর ১৬ জন প্রাণ হারান পাহাড় ধসে। আজকের পথটিও বেশ বৈচিত্র্যময়। ঘণ্টাখানেক চলার পরই পথে বিখ্যাত তাতোপানি।

কখনও সরু ফিতা কখনও এবড়ো-থেবড়ো পথে যাত্রা

ভোরের আলো ফুটতেই আবার পথে বেরোনোর তোড়জোড় শুরু হয়ে গেলো। গন্তব্য খোরলাবেসি, ৯৭০ মিটার। নাস্তা সেরে সেই সাড়ে সাতটার মধ্যেই পথে বেরিয়ে

চারিদিকে বান্দরবান বান্দরবান গন্ধ, সামনে আরক্ষেত

সাত সকালেই খুলে গেছে দোকানপাট। বেরিয়ে পড়েছে মানুষ জীবনের প্রয়োজনে। প্রথম অতি উচ্চতায় ট্রেকিংয়ের শুরু বলে সবাই নানা রকমের

ধুলোবালি গিলতে গিলতে ট্রেকিং শুরুর আরুঘাট (পর্ব-৩)

আরুঘাট মূলত নেপালের দার্দিং এবং গোর্খা জেলার মাঝে পড়েছে। যারা মানাসলু অঞ্চলের পর্বত অভিযানে আসেন অথবা মানাসলু সার্কিট ট্রেকিং

হিমালয়ের মানাসলু ট্রেকিংয়ের অদম্য নেশায় যাত্রা (পর্ব-১)

মাত্র কয়েকটা দিন আগের ঘটনাই তো। পাইলটের ঘোষণা অনুযায়ী আমাদের প্লেন তখন উড়ছে ৩৬ হাজার ফুট উপর দিয়ে। আকাশ অতটা পরিষ্কার না। ক্ষণে

তপ্ত রোদে প্রাণ জুড়ালো সিকিম তৈসা

ভয়ংকর সুন্দর উঁচু-নিচু পাহাড়ি পথ পেরিয়ে, বুক ভরে সতেজ শ্বাস নিয়ে তারপর আবার ঝরনার জলে গোসল? প্রকৃতির কোলে নিজেকে সম্পূর্ণ সঁপে দিতে

এক টুকরো আফ্রিকা (পর্ব-১)

জানলাম, কেনিয়া অত্যন্ত শুষ্ক একটি দেশ। এখানকার বেশিরভাগ ভূখণ্ডই গাছহীন, এ কারণেই সাদা রং। সবুজ অংশগুলো অবশিষ্ট বন-জঙ্গল যেখানে

সুন্দরী জলকন্যা ‘সন্দ্বীপ’

নির্দিষ্ট কোন স্থান নয়-পুরো দ্বীপটিই দেখার মত। সাগর পেরিয়ে জনপদে প্রবেশ করলেই চোখে পড়বে সবুজের সমারোহ, ম্যানগ্রোভ বন। রাস্তার পাশে

কক্সবাজারের আকাশে রোমাঞ্চকর প্যারাসেইলিং

প্যারাসেইলিং নামের অ্যাডভেঞ্চারে করে পর্যটক আকাশ থেকে দেখতে পারেন সমুদ্র ও পাহাড়ের নৈসর্গিক সৌন্দর্য । এখন এটি বাংলাদেশেই হচ্ছে।

মেঘের ওপর বসবাস, মেঘের সঙ্গে খেলা

ভোর হওয়ার আগে ঠিক এমনটাই দেখা যায় রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার রুইলুই পাড়ার পর্যটন এলাকা সাজেক ভ্যালিতে। পেঁজা তুলোর মতো নরম

অন্ধকার আলুটিলার শীতল জলধারায়

চিকন বাঁশের সঙ্গে কাপড় পেঁচিয়ে বানানো আগুন জ্বালাবার মশাল বিক্রি হচ্ছে গেটেই। সে মশাল কিনে গুহার দিকে সিঁড়ি ভেঙে এগিয়ে যাচ্ছে

ভ্রমণে নারীর সঙ্গী নারী!

তাই ঘুরে বেড়ানোর শখ ‘তোলাই’ থাকতো তানিয়ার। তখনই ফেসবুক ঘাটতে ঘাটতে চোখে পরে ‘ট্রাভেলেটস অব বাংলাদেশ’ পেজের। যার কল্যাণে

বরফে ঢাকা পড়ছে জাপানের পাহাড়-পর্বত

শীতের আগমনে জাপানের পাহাড়-পার্বতগুলো যেনো সাদা কাপড়ে ঢেকে দেয়া হয়। বৈচিত্র্যময় প্রকৃতির মাঝে এসব উঁচু পাহাড় ধপধপে সাদা রূপ নিতে

ফুল-উপকারী-পরিশ্রমী ও সময়ানুবর্তী মানুষের দেশে

নেদারল্যান্ডসের আগের নাম হল্যান্ড। দেশটির স্থলভাগের উচ্চতা সমুদ্রের জলতলের থেকে অনেক নিচু। তাই বাঁধ দিয়ে পুরো দেশটা ঘিরে রাখা

টেরাকোটায় প্রাচীন কাহিনী

সারি সারি টেরাকোটার খোদাই চিত্রে তাই পাওয়া যায় আদিকালের বনে শিকার, রাজকীয় শোভাযাত্রা, পৌরাণিক দৃশ্যাবলী, সমুদ্রগামী জাহাজ, রামায়ণ

বিচ্ছিন্ন যোগাযোগে পর্যটক হারিয়েছে সুসং দুর্গাপুর!

ভারতের মেঘালয় রাজ্যের কোলঘেঁষা গারো পাহাড়ে আচ্ছাদিত দুর্গাপুর উপজেলায় রয়েছে ১টি পৌরসভা, ৭টি ইউনিয়ন পরিষদ এবং ১৩৪টি মৌজায় ২০৫টি

মেঘ-পাহাড়-ঝরনার রূপে মুগ্ধ করা মেঘালয়

প্রকৃতির এমন অকৃত্তিম উদার রূপ দেখতে হলে আপনাকে যেতে হবে ভারতের মেঘালয় রাজ্যে। ভারতের সেভেন সিস্টার্সখ্যাত উত্তর-পূর্বে অবস্থিত

এই বিভাগের সর্বাধিক জনপ্রিয়

Alexa